বিনোদন

সিদ্ধার্থ মারা যাওয়ার পরেও এত খুশি কি ব্যাপার? ট্রোলের কড়া জবাব দিলেন শেহনাজ গিল

বিগবসের ঘর থেকেই শেহনাজ গিল (Shehnaaz Gill ) আর সিদ্ধার্থ শুক্লার (Sidharth Shukla) নাম জুড়ে তৈরি হয়েছিল তাদের নতুন পরিচয় সিডনাজ (SidNaaz) সারাক্ষণ দুটিতে মিলে সবসময় মাতিয়ে রাখতেন বিগবসের ঘর। কত অনুরাগী যে কেবল তাদের একসাথে দেখবেন বলেই বিগবস খুলে বসতেন তার ইয়ত্তা নেই। বিগবসের ঘরে জয়ীও হিয়েছিলেন সিদ্ধার্থ৷ তবে শেহনাজ আগেই জানিয়েছিলেন তিনি বিগবস নয় সিদ্ধার্থকে জিততে এসেছেন৷ কিন্তু তারপরই আচমকা সব কেমন যেন বদলে গেল, হঠাৎই সব আলো নিভিয়ে চলে গেলেন সিদ্ধার্থ শুক্লা। আর তারপর থেকে সিডনাজ নামটাও ভেঙে চুরমার হয়ে গেল।

নিষ্পাপ মুখ, মিষ্টি হাসি আর বাচ্চাদের মতো কাজ করতেই বেশি দেখা যেত অভিনেত্রী শেহনাজ গিলকে। কিন্তু সিদ্ধার্থ শুক্লার মৃত্যুর পর সেই চির চেনা ছটফটে মেয়েটা খুব ভেঙে পড়েছিল। কিন্তু সময়ের সাথে সাথে সব ক্ষততেই যে মলম পড়ে। তেমনই শেহনাজ গিলও নিজেকে ধীরে ধীরে শক্ত করেছেন, থমথমে মুখে ক্রমেই চওড়া হয়েছে হাসি।

বলা যায় এখন ‘পাঞ্জাবের ক্যাটরিনা’ ওরফে শেজনাজ এখন বেশ হ্যাপি মুডেই আছে৷ দিন কয়েক আগে নিজের ম্যানেজারের এনগেজমেন্ট পার্টিতে অভিনেত্রী মেতে উঠেছিলেন আনন্দে, আর তার জেরেই তীব্র ট্রোলড হতে হয় তাকে৷ সিদ্ধার্থের মৃত্যুর পরেও কেন তিনি এত হাসিখুশি তা নিয়েই চলছিল দেদার জলঘোলা।

Shehnaaz Gill

অবশেষে তাকে নিয়ে হওয়া এই ট্রোলের জবাবে মুখ খুললেন সিদ্ধার্থের প্রেমিকা। শিল্পা প্রশ্ন করেছিলেন, লোকেরা যে তাকে নিয়ে ট্রোল করে তাতে তার কি বক্তব্য। তার সাফ জবাব ছিল, ‘সিদ্ধার্থ সবসময় চাইত আমি খুশি থাকি।’ তিনি আরও বলেন, ‘‘আমি যদি হাসার সুযোগ পাই, তাহলে হাসব। যদি নাচ করার সুযোগ পাই, তাহলে নাচ করব। আমার যদি মনে হয় এখন দিওয়ালি পালন করব, সেটাও করব। কারণ জীবনে খুশি থাকাটা খুব গুরুত্বপূর্ণ। আর আমি আমার জীবনে সেটার চেষ্টাই করে যাব। এই প্রথম আমি এই ব্যাপারটা নিয়ে কথা বলছি, কারণ আপনি আমায় প্রশ্ন করলেন। নয়তো আমি এটা নিয়ে কখনও কথা বলতাম না, তা সে যেটাই ভাবুক না কেন!’

 

তাই তিনি বুঝিয়ে দেন, ট্রোলে তার কিছুই যায় আসেনা কেননা তিনি খুশি থাকছেন, যা সিদ্ধার্থ চাইত। আর সিদ্ধার্থের প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ” আমি কেন আমার আর সিদ্ধার্থের সম্পর্ক কেমন ছিল সেটা জনে জনে বলব। আমার মনে হয় না গোটা পৃথিবীকে এটা জানানোর দরকার আছে। ” তাই তাদের সম্পর্ক নিয়ে আলাদা করে কিছু বলার প্রয়োজনই বোধ করেননি শেহনাজ।

Related Articles

Back to top button