খবরগসিপবিনোদনসিরিয়াল

খোঁজখবর সঞ্চালক হিসাবে ছিল ব্যাপক জনপ্রিয়তা, বর্তমানে এই কাজ করছেন কৃষ্ণ কিশোর মুখোপাধ্যায়

নাম বোকা বাক্স হলেও প্রতিদিনের বিনোদন থেকে শুরু করে দুনিয়ার খোঁজ খবর ও হাল হাকিকত চোখের সামনে তুলে ধরে টেলিভিশন। দেখতে দেখতে সময় পাল্টেছে, পাল্টেছে টেলিভিশন ও তাঁর সমস্ত পোগ্রামের ধরণ। তবে টেলিভিশনের পর্দায় একসময়ে যাদের দেখে অভ্যস্ত ছিলেন দর্শকরা তাঁরা কিন্তু আজও একইরকম ভাবে দর্শক মনে রয়ে গিয়েছেন। এমনই একটি নাম হল ‘খোঁজখবর’ (Khojkhobor) সঞ্চালক কৃষ্ণ কিশোর মুখোপাধ্যায় (Krishna Kishore Mukherjee)।

বহু বছর আগে আকাশ বাংলা চ্যানেলে ‘খোঁজখবর’ নাম একটি সংবাদের অনুষ্ঠান হত। যেখানে সঞ্চালকের ভূমিকায় দেখা যেত কৃষ্ণ কিশোরে মুখোপাধ্যায়কে। রাত দশটা বাজলেই বাঙালি দর্শক হাজির হয়ে যেত টিভির সামনে তদন্তের ওপর তৈরী সংবাদের অনুষ্ঠান দেখার জন্য। একটা সাংবাদিকতার অনুষ্ঠানেই গোটা বাংলার মানুষের কাছে জনপ্রিয়তা পেয়েছিলেন তিনি।

Akash Bangla Khorkhobor anchor Krishna Kumar Mukherjee

কিন্তু একসময় অভিনেত্রী কমলিকা ব্যানার্জীর সাথে নাম জড়ায় কৃষ্ণ কিশোর মুখোপাধ্যায়ের। এরপর ধীরে ধীরে ইন্ডাস্ট্রি থেকে নিজেকে সরিয়ে ফেলেন অভিনেতা। আজ বহু বছর হয়ে গেল তাঁর দেখা নেই। কিন্তু কেন নিজেকে ইন্ডাস্ট্রি থেকে সরিয়ে নিলেন তিনি? আদৌ কি তিনি কাজে ফিরেছেন? নাকি একেবারেই অভিনয় থেকে অবসর নিয়েছেন? এই সমস্ত প্রশ্নের উত্তর নিয়েই আজ হাজির বংট্রেন্ড।

বাংলা ইন্ডাস্ট্রির ছোটপর্দার জনপ্রিয় মুখ ছিলেন কৃষ্ণ কিশোর মুখোপাধ্যায়। শুধুই যে সাংবাদিকতার অনুষ্ঠান তা কিন্তু নয়। একাধিক সিরিয়াল থেকে শুরু করে সিনেমাতেও অভিনয় করতে দেখা গিয়েছে তাকে। পাখি, মীরা থেকে আন্টাইটেলড সিনেমার জন্য বেশ প্রশংসিত হয়েছিলেন অভিনেতা।

Krishna Kishor Mukherjee

তবে অনেকের ধারণা অভিনেতা ইন্ডাস্ট্রি থেকে সরে গিয়েছে। যদিও এটা সম্পূর্ণ না হলেও ভুল। কাজ অনেকটাই কমিয়েছেন তিনি, খুব কমই তাকে পর্দায় দেখা যায়। শেষবার অভিনেতাকে দেখা গিয়েছিল ‘গল্প হলেও সত্যি’ সিরিয়ালে। তবে সম্প্রতি আবারও পর্দায় ফিরেছেন কৃষ্ণ কিশোর মুখোপাধ্যায়।

এখন নিশ্চই মনে প্রশ্ন জাগছে কোন সিরিয়ালে কামব্যাক করেছেন তিনি? এর উত্তর হল সম্প্রতি জি বাংলার পর্দায় শুরু হওয়া ‘বোধিসত্ত্বের বোধবুদ্ধি’ (Bodhisottor Bodhbuddhi) সিরিয়ালে। সেখানে বোধির শিক্ষক হিসাবে দেখা যাচ্ছে অভিনেতাকে। অবশ্য প্রথম দেখায় তাকে চিন্তা পারা কিন্তু বেশ শক্ত। কারণ একসময় ক্লিন শেভ আর মাঝ বরাবর চুলের সিথে থাকলেও এখন রীতিমত ভোলবদল হয়ে গিয়েছে তাঁর।

Related Articles

Back to top button