বিনোদনসিরিয়াল

ঘুড়ির লড়াই নিয়ে ন্যাকামি শুরু! ‘সর্বজয়া’য় দেবশ্রীর ওভার অ্যাকটিংয়ে তিতিবিরক্ত দর্শক

সারাদিনের ক্লান্তি সেরে মা, ঠাকুমাদের বিনোদন বলতে রকমারি সিরিয়াল। সন্ধ্যের শাঁখ বাজিয়েই এক কাপ চা নিয়ে সকলে মিলেই টিভির সামনে বসে যায় গৃহস্থ বাড়ির সদস্যরা। কিছুদিন আগেই জি বাংলায় শুরু হয়েছে দেবশ্রী রায়ের (Deboshree Roy) সিরিয়াল ‘সর্বজয়া’(Sarbajaya)। দীর্ঘ দশ বছর পর অভিনয় জগতে কামব্যাক করেছেন দেবশ্রী। আর একেবারে শুরু থেকেই বাজিমাত করছেন তিনি। নতুন ধারাবাহিক হলেও ইতিমধ্যেই দর্শকদের মন জয় করে সাপ্তাহিক টিআরপি তালিকায় প্রথম দশের মধ্যে তৃতীয় স্থান দখল করেছে সর্বজয়া।

সিরিয়াল শুরুর আগে থেকেই দর্শকদের মধ্যে বিপুল উত্তেজনা ছিল দেবশ্রী রায়কে দেখার। সিরিয়াল শুরুর আগে থেকেই অসংখ্য ট্রোলের সম্মুখীন হতে হয়েছিল অভিনেত্রীকে। অভিনেত্রীর এখন বয়স হয়েছে তাই তাকে এখন আর সিরিয়ালের বৌমার চরিত্রে মানায় না। এই নিয়েই তৈরী হয়েছিল নানা ধরণের মিম ছবি।

অভিনেত্রীর রক্তলেখা ছবির একটি বিখ্যাত গান হল ‘আমি কলকাতার রসগোল্লা’। অভিনেত্রীর অভিনীত অন্যতম জনপ্রিয় এই গান দিয়েই তৈরী হয়েছিল মিম। মিম বানিয়ে লেখা হয়েছিল, ‘ রূপ নিয়ে অহংকার কোরো না মাসি, ৯০ এর সেরা রসগোল্লাও আজ বাসি’। তবে এসব কটাক্ষকে কার্যত এক তুড়িতে উড়িয়ে টিআরপি তালিকায় লাগাতার তৃতীয় স্থান দখল করে রেখেছে সর্বজয়া।

তবে প্রথম দিকে ধারাবাহিক বেশ তরতরিয়ে এগোলেও কদিন যেতে না যেতেই দেবশ্রী রায়ের উপর ফের বিরক্ত দর্শকেরা। দর্শকদের একাংশ অভিনেত্রীকে টিভির পর্দায় দেখে বেশ খুশি, কিন্তু আবার অন্য একাংশের মতে বড্ড বেশি ওভার অ্যাক্টিং করছেন দেবশ্রী।

উল্লেখ্য দিন কয়েক আগেই গিয়েছে বিশ্বকর্মা পুজো। আর বিশ্বকর্মা পুজো মানেই ঘুড়ি ওড়ানো মাস্ট। তাই বিশ্বকর্মার পুজো উপলক্ষে ঘুড়ি ওড়ানোকে কেন্দ্র করে সর্বজয়াতেও দেখানো হবে বিশেষ পর্ব। যেখানে জয়া ঠিক করেছে বড় ভাসুরকে ঘুড়ি ওড়ানোয় টেক্কা দেবে সে। আর ভাবা মাত্রই বস্তির ছেলে মেয়েদের নিয়ে ঘুড়ি ওড়ানোর প্রতিযোগিতার আয়োজনও করে ফেলে জয়া। আর প্রতিবারের মতো এবারেও যথারীতি জয়ার নামজাদা শিল্পপতি স্বামী তার সমর্থনে আওয়াজ তুলেছেন।

যে এই প্রতিযোগিতায় জিতবে তার হাতেই ট্রফি তুলে দেবেন তিনি। আর এই ঘটনায় কার্যত বিরক্ত দর্শকেরা। তাদের কথা বড্ড বেশি বাড়াবাড়ি দেখানো হচ্ছে। দিন কয়েক আগে জয়ার ‘তালের বড়া’ বানানো নিয়েও দীর্ঘদিন পর্ব বাড়ানো হয়েছে ধারাবাহিকে। আর এতেই দর্শকদের মত দেবশ্রীর অতিরিক্ত অভিনয় ধারাবাহিকের মজাটাই নষ্ট করে দিচ্ছে!

Related Articles

Back to top button