বিনোদনসিনেমা

কারোর মতে যশরত তো কারোর মতে নিখিলেশ! নুসরতের সন্তানের নাম নিয়ে ট্রোলিংয়ে মত্ত নেটপাড়া

হাজার ট্রোল-মিম-অপমান, কোনো কিছুর তোয়াক্কা না করেই আজ অর্থাৎ লক্ষ্মীবারে পার্ক স্ট্রিটের এক বেসরকারি হাসপাতালে এক ফুটফুটে পুত্র সন্তানের জন্ম দিয়েছেন অভিনেত্রী তথা তৃণমূল সাংসদ নুসরত জাহান (Nusrat Jahaan)। তবে আজ তাঁর সব পরিচয়কে ছাপিয়ে গিয়েছে সদ্য মা হওয়ার পরিচয়। আর এই খবর প্রকাশ্যে আসার পর থেকেই সোশ্যাল মিডিয়ায় উপচে পড়েছে শুভেচ্ছা বার্তা।

তবে শুধু শুভেচ্ছা বার্তাই নয় নুসরতের মা হওয়ার পর থেকে সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছে ট্রোল,আর মিমের বন্যা। নুসরতের সন্তানের বাবা কে? এই এক প্রশ্নের উত্তর ঘুম উড়িয়ে দিয়েছে নেটিজেনদের। গর্ভবতী হওয়ার পর থেকে বহুবার এই প্রশ্নের মুখে পড়েছেন নুসরত। তবে সমস্ত বিতর্ক, তীর্যক মন্তব্য সবকিছু কে পিছনে ফেলে নুসরত আজ সিঙ্গল মাদার।

Nusrat Jahan নুসরত জাহান

আর এই ব্যাপারটাই সহ্য হচ্ছে না সমাজের একাংশের মানুষের। তাই শুরুর দিন থেকেই নানা ভাবে নুসরকে ট্রোল করে মজা লুটছেন নেটিজেনদের একাংশ। আর এই তথাকথিত ট্রোলারদের হাত থেকে নিস্তার পায়নি নুসরতের সদ্যোজাত শিশু পুত্রও। কেউ তাঁর জন্য নিজে থেকেই পছন্দ মতো নাম বাতলে দিচ্ছেন আবার কেউ বলিউডের জনপ্রিয় স্টার কিড তৈমুরের সাথে তুলনা টানছে তার।

আজ নুসরতের মা হওয়ার খবরে শুভেচ্ছা বার্তার পাশাপাশি নজর কেড়েছে বেশ কয়েকটি ট্রোল। যেখানে কেউ নুসরতের সদ্যোজাত সন্তানের বাবার নাম যশ দাশগুপ্ত (Yash Dasgupta) ধরে নিয়েই লিখেছেন এই শিশু পুত্রের নাম হওয়া উচিত যশরত। তো কেউ যশের সাথে নাম মিলিয়ে নুসরতের ছেলের নুহাশ রাখার পরামর্শ দিয়েছেন। আবার কেউ কেউ টেনে এনেছেন নুসরতের প্রাক্তন স্বামী নিখিল জৈনের (Nikhil Jain) নামও। এমনকি নিখিলের নামের সাথে মিলিয়ে সদ্যোজাত শিশুর নাম নিখিলেশ রাখারও পরামর্শ দিয়েছেন অনেকে।

এখানেই শেষ নয় অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার শুরু থেকেই যে ধরনের ব্যঙ্গোক্তি,এবং পরিহাসের স্বিকার হচ্ছেন নুসরত তা নিয়েও কটাক্ষ করতে ছাড়লেন না একজন নেট নাগরিক। নানান উপহাসের পাত্রী নুসরতকে সেই ব্যক্তির পরামর্শ সদ্যোজাতর নাম ‘খেসারত’ রাখুন। সেইসাথে অবশ্য টলিপাড়ার এই নতুন সিঙ্গেল মাদারকে সাহসও যুগিয়েছেন কেউ কেউ। তাই নুসরতের উদ্দেশ্যে বলা হয়েছে দাঁত-নখে শান দিয়ে নিন নুসরত, নিজের সন্তানকে রক্ষা করতে বাঘিনীর মতো ঝাঁপিয়ে পড়তে হবে।

Related Articles

Back to top button