বিনোদনভিডিওসিরিয়াল

সৌগুনকে খুশি দেখে রাগে জ্বলছে তিন্নি! গুনগুনের সুখের সংসার ছাড়খাড় করতে মরিয়া সে

বাঙালির বিনোদনের অন্যতম মাধ্যম হল সিরিয়াল। আর সিরিয়াল প্রেমীদের কাছে বিপুল জনপ্রিয় একটি সিরিয়াল হল স্টার জলসার ‘খড়কুটো'(Khorkuto)। দর্শকমহলে এই সিরিয়ালের জনপ্রিয়তা নিয়ে নতুন করে কিছু বলার নেই। এই সিরিয়ালের অন্যতম ইউএসপি হল যৌথ পারিবারের পারস্পরিক মেলবন্ধন।যা আজকের দিনে নিউক্লিয়ার বাঙালি পরিবারের ভীড়ে প্রায় বিলুপ্তির পথে।

আর এই সিরিয়ালের অন্যতম বিশেষত্ব হল শুধুমাত্র সিরিয়ালের নায়ক নায়িকা গুনগুন-সৌজন্যই (Gungun-Soujanyo) নয়, সিরিয়ালের একাধিক পার্শ্ব চরিত্রবান দর্শকমহলে সমান জনপ্রিয়। যা সাধারণত খুব কম সিরিয়ালের ক্ষেত্রেই দেখা যায়। তাই গুনগুন সৌজন্যের খুনসুটি ছাড়াও এই সিরিয়ালে থাকা একাধিক পজিটিভ চরিত্রের হাসি-ঠাট্টাও দারুন উপভোগ করেন দর্শকরা।

খড়কুটো khorkuto

 

আর সেই কারণেই টিভির পর্দায় সিরিয়ালে পছন্দের প্রিয় চরিত্রদের না দেখলে মনে খারাপ হয়ে যায় দর্শকদের।সিরিয়ালে নায়ক নায়িকা সৌগুন, চরিত্রের দিক থেকে একে অপরের থেকে একেবারে আলাদা। তবে তাঁদের মধ্যেও মান-অভিমান আর ঝগড়াঝাটি থাকলেও তা কখনই তাদের ভালোবাসাকে ছাপিয়ে যেতে পারেনি।

তাই শত ভুল বোঝাবুঝির পরেও বারে বারে একে অপরের কাছেই ফিরে এসেছে তারা। সিরিয়ালে এখন সৌজন্য -গুনগুনের বিয়ের পরে প্রেম চলছে। অন্যদিকে দুর্গাপুজোর আনন্দের মধ্যেই ধুমকেতুর মতোই হঠাৎ করে মুখার্জী বাড়িতে এসে হাজির হয় তিন্নি। সৌজন্য কে ভালোবাসতো সে। কিন্তু এখন সৌজন্য গুনগুনের। বিয়ে হয়ে গিয়েছে তাঁদের।

 

তারপরেও সৌজন্যের প্রতি তিন্নির অবসেশন দিন দিন বেড়েই চলেছে। সম্প্রতি সিরিয়ালের একটি ফ্যান পেজের তরফে ভিডিও শেয়ার করা হয়েছে। সেখানে দেখা যাচ্ছে মাঝরাতে যখন সৌগুন নিশ্চিন্তে ঘুমাচ্ছে। তিন্নি তখন নিজের মনেই বিড়বিড় করে বলে চলেছে সে গুনগুন সৌজন্য কে সুখে সংসার করতে দেবে না। এই বলেই সে সৌজন্য কে ফোন করতে শুরু করে। এই ভিডিও দেখে নেটিজেনরা রাগে তিন্নির ওপর বিরাট ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন।

Related Articles

Back to top button