বিনোদনসিনেমা

ঢাকঢোল পেটানোই সার হল! IMDB তে নামমাত্র রেটিং বক্স অফিসে ভরাডুবি হল হিরোপন্তি ২-এর

সাউথের সিনেমার রমরমা বাজারে আজই মুক্তি পেয়েছে টাইগার শ্রফ (Tiger Shroff) অভিনীত বহু প্রতিক্ষীত বলিউড সিনেমা ‘হিরোপন্তি ২’ (Heropanti 2)। তবে মুক্তির আগে সিনেমাটি যতটা আশা জাগিয়েছিল মুক্তির পর তার কানাকড়ি সাফল্যও আনতে পারবে না বলে মনে করছেন দর্শকদের একটা বড়। প্রসঙ্গত বলিউডের অ্যাকশন হিরো টাইগার অভিনীত এই সিক্যোয়েল দর্শকরা এতটাই উৎসাহী ছিলেন যে সিনেমা মুক্তির আগেই থেকেই শুরু হয়ে যায় রেকর্ড করা অগ্রিম বুকিং।

টাইগার শ্রফ ছাড়াও হিরোপন্তি ২ এর মূল আকর্ষণ হলেন তারা সুতারিয়া এবং কমেডিয়ান ভিলেন নাওয়াজ উদ্দিন সিদ্দিকী। পর্দায় তাদের দেখার জন্য একেবারে মুখিয়ে ছিলেন দর্শক। তাই মিডিয়া রিপোর্ট অনুযায়ী খবর বুধবারের মধ্যেই ১.১ লক্ষ টাকার টিকিটের অগ্রিম বুকিং করে ফেলেছিল মাল্টিপ্লেক্সগুলি। কিন্তু সেই হিসাবে নাকি এই সিনেমার কিছুই খুঁজে পাননি দর্শকরা।

আজ যে বা যারাই এই সিনেমাটি দেখেছেন তারাই সোশ্যাল মিডিয়া জুড়ে বইয়ে দিয়েছেন ট্রোলিংয়ের বন্যা। সিনেমাটি দেখার পরেই দর্শক এতটাই বিরক্ত হয়েছেন যে একজন সিনেমার রিভিউ দিতে গিয়ে একজন লিখেছেন এই সিনেমাটি দেখার অর্থ টাকা এবং সময় উভয়ই নষ্ট। শুধু তাই নয় নেটিজেনদের হিরোপন্তি ২ মাথাব্যথার সমান।

এখানেই শেষ নয় কেউ আবার লিখেছেন হিরোপন্তি ২ দেখার পরেও তিনি বেঁচে আছেন। এছাড়া অপর একজন জানিয়েছেন বলিউড ইন্ডাস্ট্রিতে তৈরি সবচেয়ে খারাপ সিনেমা হল হিরোপন্তি ২। এর থেকে বাজে আর নেই। শুধু তাই নয় যে যা পারছে সিনেমার ডায়লগ বসিয়ে দিয়ে টাইগার শ্রফের এই সিনেমা নিয়ে মিম বানাচ্ছে। মুক্তির পর আশানুরূপ ব্যাবসা তো দূরের কথা আই এম ডি বি(IMDB)-তে মাত্র ১.৪ রেটিং পয়েন্ট পেয়ে কার্যত মুখ থুবড়ে পড়েছে এই সিনেমা।

তবে অনেকের মধ্যে আবার সিনেমাটি নিয়ে দেখা যাচ্ছে মিশ্র প্রতিক্রিয়াও। ছবিটি দেখার পর থেকে দর্শকদের মধ্যে কেউ কেউ টাইগার শ্রফের অ্যাকশন সিকোয়েন্সের প্রশংসা করেছেন। পাশাপাশি প্রশংসা হচ্ছে নাওয়াজ উদ্দিন সিদ্দিকীরও। তবে এক্ষেত্রে একটি বিষয় নিঃসন্দেহে লক্ষণীয়,এত মিম, ট্রোল এবং মজার পরেও এই সিনেমাটির সাথে সরাসরি তুলনা চলছে সাউথের সুপারস্টার যশের সিনেমা কেজিএফ ২ এবং রাজামৌলির পরিচালিত সুপারহিট সিনেমা আরআরআর-এর সাথেও।

Related Articles

Back to top button