বিনোদনসিনেমা

ভাইজানের হুঁশিয়ারি সত্ত্বেও মাত্র ৫০টাকায় বিক্রি ‘রাধে’ ! শেষে তিন যুবকের ঠিকানা এখন জেল

বলিউডের ভাইজান সালমান খানের (Salman Khan) বহু প্রতীক্ষিত ছবি ‘রাধে (Radhe)’। ইতিমধ্যেই ওটিটি প্লাটফর্মে মুক্তি পেয়েছে ছবিটি। অ্যাকশন রোমান্সে ভরপুর রাধে ছবিতে সালমান খানের বিপরীতে দেখা গিয়েছে বলিউডের নায়িকা দিশা পাটানিকে (Disha Patani)। ঈদের দিন ‘Zee 5’ অ্যাপে মুক্তি পেয়েছে এই ছবি। রাধে ছবির রিলিজের আগে ট্রেলার প্রকাশ্যে আসতেই দেখা গিয়েছিল টাব্যু ভেঙে ফেলেছিলেন ভাইজান। বলিউডের ব্যাচেলার ভাইজান ৩২ বছরে প্রথমবার অন স্ক্রিনে চুমু খেয়েছিলেন। এই দৃশ্য দেখার পর রীতিমত চমকে গিয়েছিলেন সকলে।

অনেকেই ভেবেছিলেন হয়তো দীর্ঘদিনের প্রতিজ্ঞা ভেঙে ফেলেছেন সালমান খান। তবে আসল ঘটনাটা ছিল অন্যরকম। আসলে দিশা পানির মুখে সেলোটেপ লাগিয়ে চুমু খেয়েছিলেন সালমান। অর্থাৎ ক্যামেরার সামনে চুমু খেলেও আদতে কিন্তু নো চুমু! তবে এত ঢাক ঢাক গুড় গুড়ের পরেও রিলিজের পর দর্শকদের এন্টারটেইন করতে একেবারেই ব্যর্থ এই ছবি। যতটা আশা করা হয়েছিল তার নাকি কিছুই নেই ছবিতে। প্রতীক্ষিত এই ছবিটি দেখে এমনই মন্তব্য দর্শক থেকে শুরু করে সমালোচকদের।

একেই IMDB তে ১০ রাধে স্কোর করেছে মাত্র 1১.৮, তার উপর মুক্তির পরেই পাইরেসির শিকার ভাইজানের সিনেমা৷ বিভিন্ন সাইটে ইতিমধ্যেই লিকড রাধে। অর্থাৎ ওটিটিতে টাকা না দিয়ে সকলে ফ্রিতেই লুটছেন সিনেমার মজা । টেলিগ্রাম থেকে তামিলরকার্সের মতো ওয়েবসাইটে HD কোয়ালিটিতে পাওয়া যাচ্ছে ‘রাধে’র পাইরেটেড ভার্সন। আর ঘটনায় বেজায় চটলেন ভাইজান।

ইন্সটাগ্রামে পোস্ট করে সালমান খান বলেছেন, ‘আমাদের নতুন ছবি রাধে দেখার জন্য খুব কম দামই ধার্য করা হয়েছে। মাত্র প্রতি ভিউতে ২৪৯ টাকা। কিন্তু তা সত্ত্বেও অনেকগুলি ওয়েবসাইট বেআইনিভাবে পাইরেটেড ভার্সন চালাচ্ছে। এটি গুরুতর অপরাধ। সাইবার সেল এদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিচ্ছে। পাইরেটেড কনটেন্ট ডাউনলোড করলে আপনার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এর ফলে প্রচুর সমস্যায় পড়বেন।’

সালমান খান Salman Khan Kissing in Radhe

এই হুঁশিয়ারি যে একেবারেই মিথ্যা নয় তা এবার বোঝা গেল তিনযুবকের অ্যারেস্ট হবার ঘটনায়। বহুবার সতর্ক করা হলেই ছবিটি পাইরেটেড ভার্শন খুব সহজেই পাওয়া যাচ্ছিল সোশ্যাল মিডিয়াতে। তাই এবার মুম্বাই পুলিশের দ্বারস্থ হয়ে শেষমেশ তিনজনকে জেলে যেতে হল। যেমনটা জানা যাচ্ছে মাত্র ৫০ তাকে হোয়াটস্যাপেই বিক্রি হচ্ছিল রাধে। সালমান খানের টিমেরই একজনের কাছে ছবিটি বিক্রি করতে গিয়ে ধরা পড়ে ওই তিনজন।

Related Articles

Back to top button