চার মেয়ের কাঁধে বাবার বউ খোঁজার দায়িত্ব, জেনে নিন কিভাবে


সোনি টিভির জনপ্রিয় মেগাসিরিয়াল ‘মেরে ড্যাড কি দুলহান’-এর বরুণ বাদোলা, শোয়েতা তিওয়ারি ও অঞ্জলি তাৎরারী ইতিমধ্যেই পৌঁছে গিয়েছেন ঘরে ঘরে। সেই ডেইলিসোপেই দেখা যাবে নয়া মোড়! গুনিত সিক্কার সঙ্গে নিজের বাবা অম্বর শর্মার বিয়ে দেওয়ার পথে নিয়া শর্মা।

অসামান্য অভিনয় এবং আঁটোসাঁটো স্ক্রিপ্টের দরুণ ইতিমধ্যেই জনগণের মনে জায়গা করে নিয়েছে ‘মেরে ড্যাড কি দুলহান’। কাহিনী অনুযায়ী, অঞ্জলি তাৎরারী ওরফে নিয়া নিজ পিতা বরুণ বাদোলা ওরফে অম্বরের জন্য যোগ্য জীবনসাথীর সন্ধান করতে গিয়ে খুঁজে পায় শোয়েতা তিওয়ারি ওরফে গুনিতকে।

‘বিরুষ্কা’ ও ‘দীপ-ভীর’-এর পর জনমানসে জায়গা করে নিয়েছে ‘অম-নিত’। দেখার পর আস্তে আস্তে কথা এবং তার মাধ্যমেই একে অপরের মনে জায়গা করে নেন অম্বর ও গুনিত। তাঁদের মেয়ে নিয়াই এখন ওয়েডিং-প্ল্যানার। বিয়ের যাবতীয় কাজকর্ম এখন তার ঘাড়ে। কর্মজীবনের মত ব্যক্তিগত জীবনেও নিয়া যেরকম ধৈর্য্যশীল ও একাগ্র, তা দর্শককে উদ্বুদ্ধ করে। বিবাহ উৎসবে রোকার সঙ্গীতানুষ্ঠানের পর ব্যাচেলরস’ পার্টির আয়োজন হয় যাতে যোগ দেন ‘অম-নিত’-এর পরিবার পরিজন ও বন্ধুবান্ধবরা।

বিবাহ উৎসবকে আদ্যোপান্ত থিমের মোড়কে মুড়ে ফেলেছে নিয়া। আগামী অনুষ্ঠানে প্রত্যেক চরিত্রকেই দেখা যাবে ৭০-এর দশকের রেট্রো লুকে! লাল জাম্পস্যুট এবং পোলকা ডটের সাদাকালো শার্টে নিয়ার সাজে তাক লেগেছে দর্শকদের। অন্যদিকে বেলবটম প্যান্ট ও ভিন্টেজ ব্লেজারে দেখা যাবে অম্বরকে।

গুনিতের সাজের বিষয়ে আলাদা করে বলতেই হয়। ৭০-এর দশকের খ্যাতনামা অভিনেত্রী মুমতাজের অনুকরণে ক্লাসিক রেট্রো স্টাইলে একটি গেরুয়া শাড়ি পড়বেন গুনিত। নিয়ার তত্ত্বাবধানে প্রত্যেকেই এই পার্টিতে ৬০ ও ৭০ দশকের বিখ্যাত গানগুলির সাথে আনন্দ-উৎসবে যোগ দেবেন। এই এপিসোডের সম্পর্কে বলতে গিয়ে অঞ্জলি জানিয়েছেন, “অম্বর ৭০-এর দশকের গান এত গুনগুণ করতে ভালোবাসেন যে সেখান থেকেই আমাদের এই আইডিয়া মাথায় আসে। শ্যুট করতে গিয়ে পুরো সেটেই উৎসবের মেজাজ তৈরি হয়েছিল।”


Like it? Share with your friends!

583
583 points