গসিপবিনোদন

বলিউড থেকে মুখ ফিরয়েছে দর্শকেরা! কাজ হারাবে অনেক মানুষ, বয়কট ট্রেন্ড বন্ধের ডাক সুনীল শেট্টির

গত কয়েক সপ্তাহ ধরে সামাজিক মাধ্যমে ট্রেন্ড করছে ‘বয়কট লাল সিং চাড্ডা’, ‘বয়কট রক্ষা বন্ধন’ ট্রেন্ড। বলিউডের দুই সুপারস্টার আমির খান এবং অক্ষয় কুমারের ছবি বয়কটের (Boycott Bollywood) ডাক দিয়েছেন নেটিজেনদের একাংশ। যা নিয়ে বেশ চিন্তায় পড়েছিলেন দুই তারকা।

আমির এবং অক্ষয়, দু’জনেই দর্শকদের কাছে আর্জি করেছিলেন তাঁদের সিনেমা বয়কট না করার। এসবের মাঝেই আজ, অর্থাৎ বৃহস্পতিবার প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেয়েছে দুই সুপারস্টারের দুই সিনেমা। আর সিনেমা মুক্তির পরই ‘বয়কট বলিউড’ ট্রেন্ড নিয়ে প্রথমবার মুখ খুলেছেন সুপারস্টার সুনীল শেট্টি (Suniel Shetty)।

Suniel Shetty

গত কয়েক সপ্তাহ ধরে আমির এবং অক্ষয়ের পুরনো বেশ কিছু বক্তব্য এবং টুইটের জেরে তাঁদের ছবি বয়কট করার ডাক দিয়েছিলেন নেটিজেনদের একাংশ। সেসবগুলি সামাজিক মাধ্যমে বেশ ভাইরালও হয়েছিল। অনেক ক্ষেত্রে আবার প্রেক্ষাপট না বলে শুধুমাত্র মন্তব্য বা টুইট তুলে ধরে নেটিজেনদের উস্কেও দিচ্ছিলেন বেশ কিছু মানুষ।

এবার এক নামী সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে আলাপচারিতার সময় এই বিষয়ে মুখ খোলেন বলিপাড়ার ‘আন্না’ সুনীল শেট্টি। ‘হেরা ফেরি’ খ্যাত অভিনেতা বলেন, ‘আমরা প্রত্যেকে প্রচুর পরিশ্রম করি। আমরা সবাই চাই ভালো কাজ করতে। আমাদের লক্ষ্যটা কিন্তু ভালো। আমির খানের ইচ্ছা সবসময় ভালোই ছিল। ও চাইলে কিন্তু এক বছরে ৫টা ছবিও করতে পারে। কিন্তু ও পাঁচ বছরে ১টা ছবি করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। আমাদের সেটা সম্মান করা উচিত’।

Laal Singh Chaddha

এরপর নিজের ‘হেরা ফেরি’ সহ অভিনেতা অক্ষয়ের সম্বন্ধে বলেন সুনীল। অভিনেতা বলেন, ‘আর যদি অক্ষয় কুমারের কথা বলা হয়, তাহলে ও সব সময় ভালো কিছু করার চেষ্টা করে এবং এন্টারটেইনিং ছবি দর্শকদের দেখানোর চেষ্টা করে। আমরা প্রত্যেকে ভাঁড়। আমাদের দর্শকদের ইচ্ছা অনুযায়ী চলতে হয়’।

Raksha Bandhan Movie

আমির-অক্ষয়কে নিয়ে বলার পর ‘বয়কট বলিউড’ ট্রেন্ড নিয়ে মুখ খোলেন সুনীল। অভিনেতা বলেন, ‘টুইটারে চলতে থাকা বয়কট বলিউড ট্রেন্ড আমি ঘৃণা করি। আমি সব সময় প্রার্থনা করি এটা যেন বন্ধ হয়ে যায়। কারণ আমরাও একটি ইন্ডাস্ট্রি এবং অনেক মানুষের সিনেমা করেই সংসার চলে। তাই সেই কারণে একটা ইন্ডাস্ট্রি ধ্বংস করা উচিত নয়’।

Related Articles

Back to top button