গসিপবিনোদন

বিয়ের পরেও সুখী নন, নিত্যদিন ঝামেলা অশান্তি থেকে পরকীয়া! বিচ্ছেদের পথে শোয়েব-সানিয়া জুটি

ভারত-পাকিস্তানের অম্লমধুর সম্পর্কের কথা কারোরই অজানা নয়। আর তা সত্ত্বেও ভারতের একজন পরিচিত ব্যক্তিত্ব হওয়া সত্ত্বেও পাকিস্তানের নামী ক্রিকেটার শোয়েব মালিকের (Shoaib Malik) সঙ্গে সাত পাক ঘোরার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন সানিয়া মির্জা (Sania Mirza)। শুনেছিলেন বহু কটু কথা। তাঁর দেশভক্তি নিয়েও উঠেছিল নানান প্রশ্ন। যদিও ভালোবাসার কাছে শেষ পর্যন্ত হার মেনেছিল সব কিছুই।

সম্পর্কের শুরু থেকেই সানিয়া এবং শোয়েব প্রচুর ঝড়ঝাপ্টার সম্মুখীন হয়েছেন। ২০০৯ সালে বাগদান সারার পর সেটি ভেঙে দিয়েছিলেন দু’জনে। তবে ফের মনোমালিন্য মিটিয়ে ২০১০ সালে সাত পাক ঘোরেন দু’জনে। প্রথমে হায়দ্রাবাদি মুসলিম বিয়ে এবং এরপর শিয়ালকোটে ওয়ালিমা রীতিতে পরিণয় সূত্রে বাঁধা পড়েছিলেন শোয়েব এবং সানিয়া।

Sania Mirza and Shoaib Malik

২০১৮ সালের অক্টোবর মাসে দুই দেশের এই তারকা জুটির ঘর আলো করে জন্ম নেয় তাঁদের শিশুপুত্র ইজহান মির্জা মালিক। ছেলেকে নিয়ে বেশ সুখেই সংসার করছিলেন দু’জনে। তবে ৫ দিন আগে ইজহানের জন্মদিনে সানিয়ার পোস্ট দেখেই স্বামীর সঙ্গে তাঁর বিচ্ছেদের জল্পনা শুরু হয়।

ছেলে ইজহানের জন্মদিনের দিন তাঁর সঙ্গে নিজের একটি ছবি শেয়ার করে ভারতের এই তারকা টেনিস প্লেয়ার ক্যাপশনে লিখেছিলেন, ‘এই মুহূর্তগুলিই আমায় জীবনের সবচেয়ে কঠিন সময় পেরোতে সাহায্য করে’। সানিয়ার এই পোস্ট দেখেই নেটপাড়ায় তাঁর সংসার নিয়ে চর্চা শুরু হয়। তখন থেকেই গুঞ্জন শোনা যায় যে ফাটল ধরেছে তারকা জুটির সুখের সংসারে।

Sania Mirza with her son

এরপর ইজহানকে উইশ করার সময় শোয়েব যে পোস্ট করেন তা দেখার পর সেই জল্পনা যেন আরও কয়েক গুণ বেড়ে যায়। পাকিস্তানের তারকা ক্রিকেটার ক্যাপশনে লেখেন, ‘তোমার জন্মের সঙ্গেই আমাদের জীবন অনেক বেশি বিনয়ী এবং বিশেষ হয়ে গিয়েছিল। আমরা হয়তো একসঙ্গে নেই, রোজ দেখা হয় না তবে বাবা প্রত্যেক মুহূর্তে তোমার এবং তোমার হাসির কথাই ভাবে। তুমি যা চাও আল্লাহ যেন তোমায় সব দেয়। বাবা এবং মামা তোমায় খুব ভালোবাসে’। শোয়েবের ছবিতে সানিয়া থাকলেও তাঁর ক্যাপশন উস্কেছে বিচ্ছেদের জল্পনা।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Shoaib Malik (@realshoaibmalik)

এবার শোয়েব-সানিয়ার এক ঘনিষ্ঠ ব্যক্তি জানিয়ে দিলেন যে ডিভোর্স হয়ে গিয়েছে তারকা জুটির। সম্প্রতি একটি নামী সংবাদমাধ্যমে সংশ্লিষ্ট সূত্রকে উদ্ধৃত করে লেখা হয়েছে, ‘হ্যাঁ, ওনাদের আইনত বিচ্ছেদ হয়ে গিয়েছে। আমি এর চেয়ে বেশি কিছু বলতে পারব না। তবে নিশ্চিত করতে পারি যে ওনাদের বিচ্ছেদ হয়ে গিয়েছে’। বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন থেকে জানা গিয়েছে, সানিয়াকে অনেকদিন ধরেই ঠকাচ্ছিলেন শোয়েব। সেই জন্যই বিচ্ছেদের পথে হেঁটেছেন ভারতীয় টেনিস তারকা।

Related Articles

Back to top button