গসিপবিনোদনসিনেমা

মিথ্যে রটনা থেকে নোংরা আক্রমণ সহ্য করতে হচ্ছে! সোশ্যাল মিডিয়াতে বিস্ফোরক বিবৃতি শিল্পার

পর্নোগ্রাফিক কনটেন্ট (Pornographic Content) বানানো এবং তা অ্যাপের মাধ্যমে ছড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগে গত ১৯ জুলাই মুম্বাই পুলিশের হাতে গ্রেফতার হয়েছেন রাজ কুন্দ্রা (Raj Kundra)। তারপর থেকেই রাজ জেলে থাকলেও তাঁর স্ত্রী তথা বলিউড অভিনেত্রী শিল্পা শেঠি কুন্দ্রাকে (Shilpa Shetty Kundra) নেটিজেনদের নানান ব্যঙ্গ বিদ্রুপের মুখেও পড়তে হচ্ছে। এমনকি শিল্পার অভিযোগ এখনও পর্যন্ত এপ্রসঙ্গে তিনি মুখ না খুললেও তাঁর মুখে জোর করে কথা বসিয়ে প্রচার করা হচ্ছে।

নেটিজেনদের ব্যাঙ্গ বিদ্রূপের মুখে পড়ে বম্বে হাইকোর্টে (Bombay HC) সংবাদ মাধ্যমের বিরুদ্ধে ২৫ কোটি টাকার মানহানি মামলা দায়ের করেছিলেন শিল্পা। এই মামলায় উল্টে আদালতের ভৎর্সনার মুখে পড়েছিলেন রাজ ঘরণী। শনিবার আদালতের তরফে সাফ জানিয়ে দেওয়া হয় ‘পুলিশের বয়ানের ভিত্তিতে কোনও সংবাদ করা হয়ে থাকলে, তা ভুয়ো বলে গণ্য হবে না, উপরন্তু মিডিয়ার উপর এই বিষয়ে আঘাত হানার অর্থ গণমাধ্যমের স্বাধীনতাকে লঙ্ঘিত করা।’

শিল্পা শেট্টি Shilpa Shetty

এরপর রাজের গ্রেফতারি প্রসঙ্গে আজ সোশ্যাল মিডিয়ায় বিবৃতি জারি করেছেন শিল্পা। বিবৃতিতে তিনি লিখেছেন,’হ্যাঁ! গত কয়েকদিনটা খুব চ্যালেঞ্জিং আমার জন্য, সবক্ষেত্রেই। চারিদিকে অনেক রটনা, এবং অভিযোগের বন্যা। প্রচুর পরিমাণে অযৌক্তিক দাবিদাওয়া আমার নামে চালিয়ে দিচ্ছে সংবাদমাধ্যম এবং আমার শুভাকাঙ্ক্ষীরা (আদতে নন)। অনেক ট্রোলিং আর প্রশ্ন রাখা হচ্ছে শুধু আমাকে নিয়ে নয়, আমার পরিবারকে নিয়েও।’

শিল্পা শেট্টি Shilpa Shetty Crying

সেইসাথে এর পরেই তিনি বড় বড় অক্ষরে তিনি লিখেছেন, ‘আমি এখনও কোনও বিষয়ে প্রকাশ্যে কোনও মন্তব্য করিনি। করবও না। কারণ এই মামলাটি আদালতে বিচারাধীন, তাই দয়া করে আমার নামে মিথ্যা কোনও বিবৃতি রটাবেন না।’ শিল্পার কাতর আর্তি ‘আমি অত্যন্ত বিনয়ের সঙ্গে মা হিসাবে আবেদন জানাচ্ছি, আমাদের গোপনীয়তার একটু খেয়াল রাখুন, অন্তত আমার দুই সন্তানের জন্য। দয়া করে কোনও অর্ধ-সত্য তথ্য ছড়িয়ে দেবেন না।’

লেখা শেষ করার আগে বিবৃতিতে শিল্পা সাফ জানিয়ে দিয়েছেন , “ভারতীয় নাগরিক হিসেবে আমার আইনের উপর আস্থা রয়েছে। গত ২৯ বছর ধরে কঠোর পরিশ্রম করে নিজের কেরিয়ার গড়েছি। মানুষ যেভাবে বিশ্বাস করেছেন, আমিও তা রেখেছি। তাই আমাদের নীরবতার সুযোগ নিয়ে ভুয়ো রটনা কিংবা অযথা আক্রমণ করবেন না। আমাদের ব্যক্তিগত গোপনীয়তাকে সম্মান করুন। আইনকে আইনের পথে হাঁটতে দিন। সত্যমেব জয়তে!”

Related Articles

Back to top button