গসিপবিনোদনসিনেমা

সলমনের জুতোয় ‘হিসি’ করেছিলেন সুভাষ ঘাই! পরিচালককে টেনে চড় কসিয়েছিলেন ভাইজান

হিন্দি সিনেমা জগতের প্রথমসারির অভিনেতাদের মধ্যে অন্যতম হলেন সালমান খান। বলিউডে অভিনয়ের পাশাপাশি ভাইজানের মেজাজ সম্পর্কে কমবেশি সকলেই জানেন। অতীতে মেজাজ হারিয়ে মারপিট করার অভিযোগে একাধিকবার শিরোনামেও এসেছেন অভিনেতা। তবে বেশ কিছুদিন ধরেই আলোচনার কেন্দ্রবিন্দু হয়ে উঠেছেন সালমান খানের প্রাক্তন প্রেমিকা সোমি আলি।

আসলে সম্প্রতি সালমানের অপর প্রাক্তন প্রেমিকা তথা বিশ্বসুন্দরী ঐশ্বর্য রাই বচ্চনের প্রশংসায় পঞ্চমুখ হয়েছিলেন সোমি আলি (Somi Ali)।প্রসঙ্গত সালমান খানের সাথে সম্পর্কে থাকাকালীন ঐশ্বর্য রাই তার শারীরিক নির্যাতনের অভিযোগে মামলা করেছিলেন। সেই প্রসঙ্গ টেনে নাম না করেই ঐশ্বরিয়ার সাহসের প্রশংসা করেছেন সোমি।

Salman Khan Somy Ali

আর এই প্রসঙ্গেই সম্প্রতি আলোচনায় উঠে এসেছে সালমান খানের পুরনো একটি সাক্ষাৎকার। উল্লেখ্য ২০০২ সালে,ঐশ্বর্যর সাথে দুর্ব্যবহার করার অভিযোগ ওঠে সালমান খানের বিরুদ্ধে। সেই সময় সালমান খানের একটা ব্যাড বয় ইমেজ তৈরি হয়েছিল। তবে নিজের বিরুদ্ধে ওঠা সমস্ত অভিযোগ উড়িয়ে দিয়ে সালমান দাবি করেছিলেন ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে তিনি যদি কারও ওপর হাত উঠিয়ে থাকেন, তবে তিনি হলেন পরিচালক সুভাষ ঘাই।

সাক্ষাৎকারে সালমান বলেছিলেন, ‘আমি কারো ক্ষতি করি না, যখন রাগ করি তখন নিজের ক্ষতি করি। এমনও হয়েছে যে রেগে গিয়ে দেয়ালে মাথা ঠুকেছি। হ্যাঁ, এটা সত্যি যে একবার এটা আমার সহ্যের বাঁধ ভেঙেছিল এবং আমি পরিচালক সুভাষ ঘাইয়ের গায়ে হাত তুলেছিলাম।’

সুভাষ ঘাইয়ের সাথে লড়াই সম্পর্কে বলতে গিয়ে সালমান জানিয়েছিলেন, ‘কখনও কখনও এমন পরিস্থিতি তৈরি হয় যখন আমরা মেজাজ হারিয়ে ফেলি। উনি প্রথমে আমার দিকে একটি চামচ ছুড়ে মারেন এবং তারপর আমার কলারে হাত রেখে আমাকে জড়িয়ে ধরেন। এরপর তিনি আমার জুতোয় প্রস্রাব করে দেন। তারপর আমি আর নিজেকে সামলাতে পারিনি,রাগের মাথায় ওনাকে চড় মেরে দিয়েছিলাম।অবশ্য পরের দিন গিয়ে ক্ষমাও চেয়ে নিয়েছিলাম।’

Related Articles

Back to top button