গসিপবিনোদনসিরিয়াল

মৃত্যুর আগেই পূর্ণতা পেয়েছিল ভালোবাসা, সাত পাক ঘুরেছিলেন সব্যসাচী-ঐন্দ্রিলা! রইল বিয়ের ছবি

বাংলা টেলিভিশনের জনপ্রিয় অভিনেত্রী ঐন্দ্রিলা শর্মা (Aindrila Sharma) গত রবিবার প্রয়াত হয়েছেন। মাত্র ২৪ বছর বয়সেই নিভে গিয়েছে অভিনেত্রীর জীবনপ্রদীপ। দেখতে দেখতে ২ দিন কেটে গেলেও এখনও পর্যন্ত অনুরাগীরা তাঁকে হারানোর কষ্টে ভুগছেন। সেই সঙ্গেই তাঁদের মনে ঘুরপাক খাচ্ছে একটাই প্রশ্ন, সব্যসাচী (Sabyasachi Chowdhury) এখন কেমন আছেন?

টলিউডের সব্যসাচী-ঐন্দ্রিলা জুটিকে নেটিজেনরা আগেই বাস্তবের ‘রোমিও-জুলিয়েট’ রকমা আগেই দিয়েছে। রোমিও-জুলিয়েটের মতোই অপূর্ণতাতেই পূর্ণ তাঁদের প্রেম। ২০১৭ সাল থেকে যে ভালোবাসার পথচলা শুরু, ২০২২ সালে এসে ঐন্দ্রিলার মৃত্যুর সঙ্গে ইতি পড়ল তাতে।

Aindrila Sharma Sabysachi Chowdhury Unknown love story

২৪ বছরের ঐন্দ্রিলার বিনোদন দুনিয়ায় পথচলা শুরু হয়েছিল ‘ঝুমুর’ ধারাবাহিকের হাত ধরে। এই সিরিয়ালে তাঁর বিপরীতে অভিনয় করেছিলেন প্রেমিক সব্যসাচী চৌধুরীই। যদিও তখন তাঁদের মধ্যে সম্পর্ক তৈরি হয়নি। বরং এই ধারাবাহিকের সেট থেকে প্রেম পর্ব শুরু হয়েছিল দু’জনের।

ঐন্দ্রিলা-সব্যসাচীর প্রেম একেবারেই ‘লাভ অ্যাট ফার্স্ট সাইট’ ছিল না। বরং সময় নিয়ে জহুরীর মতো করে অভিনেতাকে পরখ করে নিয়েছিলেন ‘জিয়ন কাঠি’ অভিনেত্রী। শোনা যায়, শ্যুটিং থেকে ছুটি পেলেই বন্ধুবান্ধবদের নিয়ে আড্ডা দিতে বসে পড়তেন ঐন্দ্রিলা। সেখানে থাকতেন সব্যসাচীও। তখন থেকেই ফোনে কথাবার্তা শুরু। এরপর কখন কথা বলতে বলতেই একে অপরের প্রেমে পড়ে যান দু’জনে তা বুঝতেও পারেননি।

Aindrila Sharma Sabyasachi Chowdhury marriage in Jhumur

২০২১ সালে যখন ঐন্দ্রিলার শরীরে দ্বিতীয়বারের জন্য ক্যান্সার থামা বসিয়েছিল, তখনও সর্বক্ষণ পাশে ছিলেন সব্যসাচী। ‘জিয়ন কাঠি’ অভিনেত্রী নিজে বলেছিলেন, ক্যান্সার আক্রান্ত হয়ে অনেক শারীরিক কষ্ট সহ্য করতে হলেও একটুও মানসিক কষ্ট সহ্য করতে দেননি সব্যসাচী। গত ১ নভেম্বর যখন ঐন্দ্রিলা ব্রেন স্ট্রোকে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন তখন অভিনেতা লিখেছিলেন, ‘নিজের হাতে করে নিয়ে এসেছি, নিজের হাতে করে ফিরিয়ে নিয়ে যাবো। এর অন্যথা কিছু হবে না’। কিন্তু অভিনেত্রীর প্রয়াণের সঙ্গেই তাঁদের প্রেম ‘পূর্ণতা’ পাওয়ার জায়গায় ‘অমর’ হয়ে রয়ে গেল।

Aindrila Sharma Sabyasachi Chowdhury marriage in Jhumur

তবে অনেকেই হয়তো জানেন না, সাত পাক কিন্তু ঘুরেছিলেন সব্যসাচী-ঐন্দ্রিলা।অভিনেতার মাথায় ছিল টোপর, অভিনেত্রী ছিলেন কনের সাজে। হ্যাঁ, ঠিকই দেখছেন। বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হয়েছিলেন সব্যসাচী-ঐন্দ্রিলা। যদিও বাস্তবে নয়, বরং টেলিভিশনের পর্দায় সাত পাক ঘুরেছিলেন দু’জনের। অভিনেত্রীর মৃত্যুর পর অনেকে ফের ‘ঝুমুর’ ধারাবাহিকটি দেখা শুরু করেছেন। সেখানেই সব্যসাচী-ঐন্দ্রিলার পর্দার বিয়ের দৃশ্যের ছবি সামাজিক মাধ্যমে তুমুল ভাইরাল হয়েছে। যা দেখে চোখে জল এসে গিয়েছে অনেক নেটিজেনের।

Related Articles

Back to top button