Roshan Singh রোশান সিং

আর্থিক সমস্যায় ভুগছেন শ্রাবন্তীর তৃতীয় স্বামী রোশন! ভাঙলেন নিজের শেষ সম্বল পিগি ব্যাঙ্ক


গত বছর পুজো থেকে শুরু করে দীর্ঘ  ৫ মাস ধরে টলিউডের অভিনেত্রী শ্রাবন্তী (Srabanti) ও তার তৃতীয় স্বামী রোশন সিং (Roshan Singh) রয়েছেন শিরোনামে। নেপথ্যে তাদের বৈবাহিক সম্পর্ক। পুজোর সময় থেকেই একেঅপরের থেকে আলাদা হয়ে যান শ্রাবন্তী ও রোশন। তিন তিন বার বিয়ের পরেও সাংসারিক সুখ বোধহয় নেই টলিউডের এই অভিনেত্রীর কপালে! তৃতীয় বিয়ের দুই  বছরের মধ্যেই সম্পর্কে বিচ্ছেদের কালো মেঘ চেয়ে গেছে। এই নিয়ে টলিপাড়ায় তুমুল চর্চিত শ্রাবন্তী ও রোশন।

Srabanti Roshan Singh

দুজনেই বর্তমানে আলাদা থাকেন। শ্রাবন্তী তার নিজের জিম ও অনুষ্ঠান নিয়ে ব্যস্ত। অন্যদিকে রোশন ও তাঁর জিম ও শরীরচর্চা নিয়ে দিব্যি আছেন। যদিও প্রকাশ্যে কোনো রকম মন্তব্য করেননি কেউই। তবে, সোশ্যাল মিডিয়াতে একেঅপরের প্রতি কাদা ছোড়াছুড়ি চলছেই। সোশ্যাল মিডিয়াতে পোস্টের ইশারা ইঙ্গিতেই চলছে কথোপকথন। অবশ্য সোশ্যাল মিডিয়া পোস্ট গুলি একান্তই ব্যক্তিগত ও কারোর উদ্দেশ্যে নয় সেটা স্পষ্ট করে দিয়েছেন দুজনেই।

Srabanti Roshan SIngh শ্রাবন্তী রোশান সিং

প্রায়শই শ্রাবন্তী ও রোশন নানান ছবি ও ভিডিও শেয়ার করছেন তাদের সোশ্যাল মিডিয়াতে। যা শেয়ার হবার পরেই ভাইরাল হয়ে পড়ছে দুরন্ত গতিতে, কারণ দুজনের সম্পর্কের বিষয়ে জানতে বিশাল আগ্রহী সাধারণ মানুষ। কখনো রোশন অতীতের ছবি শেয়ার করে সেই দিন গুলিই ভালো ছিল বলছেন তো কখনো অপরাধী গানে  রাতের কলকাতার ভিডিও শেয়ার করছেন। এদিকে শ্রাবন্তী আবার ছবি শেয়ার করে বলেছেন অতীতের বাধা কাটিয়ে এগিয়ে যেতে হবে।

Roshan SIngh

এইসব তো চলছেই, সম্প্রতি একটি ছবি শেয়ার করেছেন রোশন সিং। ছবিতে বেশ কিছু খুচরো পয়সা পরে থাকতে দেখা যাচ্ছে বিছানায়। আর ছবিতেই লেখা আছে ‘আমার পিগি ব্যাঙ্ক ভাঙলাম ২ বছর পরে’। ছবিতে ছড়িয়ে থাকা কয়েক দেখে যদিও সেটা বেশ ভালোই বোঝা যাচ্ছে। কারণ, ২ টাকা ৫ টাকা থেকে শুরু করে ১০ টাকা পর্যন্ত কয়েন রয়েছে সেখানে। সাধারণত মানুষ অসময়ের জন্য লক্ষীর ভাঁড়ে বা মাটির ভাঁড়ে টাকা জমায়।

Roshan Singh Broke Piggy Bank রোশান সিং

প্রয়োজন পড়লে সেটা ভেঙে টাকা বের করে। কিন্তু কথা হল রোশনের কি এমন দরকার পড়ল যে টাকা সঞ্চয়ের ভাঁড় ভাঙতে হল! যদিও কারণটা এই মুহূর্তে স্পষ্ট নয়, তবে আশা করা যায় শীঘ্রই সেটা সামনে আসবে।


Like it? Share with your friends!

667
7 shares, 667 points