গসিপবিনোদনভিডিওসিরিয়াল

প্রতিভার কদর নেই! সুদক্ষ অভিনয় থেকে কাজের ইচ্ছা সত্ত্বেও কাজ নেই, আক্ষেপ রীতা দত্ত চক্রবর্তীর

টলিউড (Tollywood) থেকে বাংলা টেলিভিশন সময়ে সময়ে একাধিক দুর্দান্ত অভিনেত্রী উপহার দিয়েছে বাঙালি দর্শকদের। এমনই একজন সুদক্ষ অভিনেত্রী হলেন রীতা দত্ত চক্রবর্তী (Rita Dutta Chakraborty)। টেলিভিশন স্ক্রিন থেকে রুপোলি পর্দা সব জায়গাতেই নিজের দক্ষ অভিনয়ের প্রতিভা ফুটিয়ে তুলেছেন অভিনেত্রী। তাই তো দর্শকদের কাছে প্রতিবারেই প্রশংসা পেয়েছেন ভুরি ভুরি। তবে এমন একজন দক্ষ অভিনেত্রী হয়েও বড়পর্দায় সুযোগ খুব কমই মেলে।

মূলত টেলিভিশনের পর্দাতেই বর্তমানে দেখা যায় অভিনেত্রীকে। কিন্তু কেন? তাহলে কি টেলিভিশনেই কাজ করতে চাইছেন তিনি? নাকি বড়পর্দা থেকে এখন আর ডাক আসে না? সম্প্রতি এই এক সাক্ষাৎকারে এই সমস্ত প্রশ্নের উত্তরের পাশাপাশি নিজের আক্ষেপ নিয়ে অকপট হয়েছেন অভিনেত্রী রীতা দত্ত চক্রবর্তী।

Rita Dutta Chakraborty interview

এদিন সংবাদ মাধ্যমের কাছে অভিনেত্রী জানান, শুরুতে থিয়েটার দিয়েই শুরু হয়েছিল অভিনয়ের যাত্রা। উচ্চাকাঙ্খা কোনোদিনই তাঁর ছিল না। নিজে কেমন দেখতে বা কতটা পেতে পারেন সেটা ভালোই জানেন তিনি। তাই অনেক সময় বড় পর্দায় ডাক না পেলে নিজেই নিজেকে বলেন হয়তো কোনো ত্রুটি ছিল সেই কারণেই সুযোগ পাওয়া হল না। তবে বড় পর্দায় কাজ নিয়ে একটা আক্ষেপ রয়েছে বটে।

একাধিক পরিচালকের সাথে কাজ করেছেন তিনি। তবে সিনেমা আর সিরিয়াল দুটো জগৎ সম্পূর্ণ আলাদা। তাই যখন সিনেমাতে অভিনয়ের সুযোগ মেলে তখন একরকম আর সিরিয়ালের কাজের সময় অন্য এক রকম কাজ করতে হয়। তবে অভিনয়টা না করলে ভালো লাগে না। তাই যেকোনো রকমের কাজে না নেই, অভিনয়টা করে যেতে চান তিনি।

এরপর অভিনেত্রীকে কাজ চেয়ে নেওয়ার বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে তিনি স্পষ্ট জানান, কাজ চেয়ে নিতে সংকোচ বোধ করেন তিনি। তাঁর মতে, ‘একটা সময় সত্যজিৎ রায় থেকে মৃণাল সেনের মত পরিচালকেরা নিজেরাই মানানসই অভিনেতা বা অভিনেত্রী খুঁজে নিতেই। জানি জগ পাল্টে গিয়েছে তবে সেই ধারণা আজও মাথা থেকে বের করতে পারিনি’।

প্রসঙ্গত, আজকালকার দিনে ছোট থেকে বড় পর্দার তারকারা সোশ্যাল মিডিয়াতে বেশ সক্রিয় হলেও তাকে দেখা যায় না বললেই চলে। এই প্রসঙ্গে অভিনেত্রী জানান, সোশ্যাল মিডিয়াতে আমি নেই বললেই চলে। আসল খুব একটা পছন্দ হয় না সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যাপারটা। সেখানে যে ধরণের মন্তব্য করা হয় সেটা মোটেই পছন্দ হয় না। কারণ ব্যক্তিগতভাবে কারোর কাউকে পছন্দ নাই লাগতে পারে। কিন্তু আমার মনে হয় মানুষের মানুষের প্রতি শ্রদ্ধা থাকা উচিত’।

Related Articles

Back to top button