খবরগানবিনোদন

আফগানিস্তানের মানুষদের জন্য প্রতিবাদ, অর্থ সাহায্য চেয়ে গিটারে সুর তুলল ঋদ্ধি-সুরঙ্গনা

রবিবার গোটা ভারতবর্ষ যখন স্বাধীনতা দিবস উদযাপন করতে ব্যাস্ত ঠিক তখনই তালিবানরা (Taliban) হাতের মুঠোয় পুরে নেয় গোটা আফগানিস্তান (Afganistan)। আর তালিবানরা দখল নেওয়ার পর থেকেই আফগানিস্তানের বাতাসে বারুদের গন্ধ আর রাস্তায় চাপ চাপ রক্ত। আর সেই দৃশ্যই সেদেশের নাগরিকদের ২০ বছর আগের নৃশংস তালিবানি শাসনের পুরনো স্মৃতি উস্কে দিচ্ছে বারবার।

আর তাই তালিবানদের কবল থেকে নিজেদের মুক্ত করতে দেশ ছাড়ার মরিয়া চেষ্টা চালাচ্ছেন সেদেশের নাগরিকরা। সেই কারণেই প্রাণ বাঁচানোর শেষ চেষ্টাতে করতে গিয়ে হুড়োহুড়ি পড়ে গিয়েছিল কাবুলের হামিদ কারজ়াই আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে। ইতিমধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়ার দৌলতে ভাইরাল হয়েছে সেই মর্মান্তিক দৃশ্যের একধিক ছবি এবং ভিডিও।

সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হওয়া একটি ভিডিও দেখে যা দেখে শিউরে উঠেছে গোটা বিশ্ব। ছবিতে দেখা যাচ্ছে নীল রঙের বাস্কেটে হলুদ জামা গায়ে শুয়ে রয়েছে এক সদ্যোজাত শিশু। বাবা-মাকে দেখতে না পেয়ে অনবরত কেঁদে চলেছে সে। অথচ তাঁকে কেউ তুলে নিয়ে যাচ্ছে না। একরত্তি শিশুর কান্না শুনে চোখ মুছেছেন নেটিজেনরাও। আফগানিস্তানের ওই শিশুর আর্তনাদ বিশ্ববাসীর মনে উস্কে দিয়েছে ছয় বছর আগে ভূমধ্যসাগরে ভেসে ওঠা সিরিয়ান শিশু আয়লান কুর্দির (Alan Kurdi) পুরনো স্মৃতি।

সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হওয়া অপর একটি ভিডিও দেখে ভাষা হারিয়েছেন অনেকেই। সেই ভিডিওতছ দেখা যাচ্ছে বিমানবন্দরের ভিতরে থাকা মার্কিন সেনার হাতে নিজের সন্তানকে তুলে দিচ্ছেন এক মহিলা। নিজের দেহে প্রাণ থাকতে তালিবানদের হাত সন্তানকে বাঁচানোর এই শেষ চেষ্টা মন ছুঁয়েছে অসংখ্য মানুষের। এই পরিস্থিতিতে ওই দেশের নিরীহ মানুষদের জন্য গান গাইলেন অভিনেতা ঋদ্ধি সেন (Riddhi Sen) ও সুরঙ্গনা বন্দ্যোপাধ্যায় (Surangana Banerjee)। সেইসাথে সেখানকার মানুষদের পাশে দাঁড়াতে অর্থ সাহায্যও চাইলেন।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Riddhi Sen (@riddhi_sen_)

ভিডিওতে মার্কিনী লোকগীতি Wayfaring stranger ও পল সিমনের গাওয়া Sound of Silence গান গেয়ে ক্যাপশনে অভিনেতা লিখছেন, ‘চার দেওয়ালের মধ্যে বসে কিছু করাই বৃথা l ওখানে এখন একটা গোটা দিন সাধারণ নাগরিকরা কিভাবে কাটাচ্ছেন, সেটা আমাদের কল্পনার অতীত l বন্দুকের রাজনীতি আর বড়ো বড়ো দেশের দাবা খেলার সামনে এখনো একটা গানের সুর বা একটা কবিতা খুব ক্ষীণ হলেও বড্ডো সত্যি, এমন একটা সত্যি যেটা থেকে যাবে, বন্দুকের আওয়াজের উর্ধে l’

Related Articles

Back to top button