বিনোদনভিডিও

চা বেচে প্রধানমন্ত্রী হলে, বলিউডের কাজ করে মুখ্যমন্ত্রী হব না? বড়সড় ঘোষণা করলেন রাখি সাওয়ান্ত

বলিউডের ‘ড্রামা ক্যুইন’ (Drama Queen) বলা হয় তাঁকে। সব কিছুতে একটু এক্সট্রা ড্রামা মেশানো বিশেষ পছন্দ তাঁর। সেই রাখি সাওয়ান্ত (Rakhi Sawant) এবার বলিউডের গণ্ডি পেরিয়ে রাজনীতির (Politics) ময়দানে পা রাখতে চলেছেন। সম্প্রতি নিজেই একটি ভিডিওয় একথা বলেছেন তিনি।

সম্প্রতি বর্ষীয়ান বলিউড অভিনেত্রী তথা রাজনীতিবিদ হেমা মালিনীকে বলিউডের ব্যক্তিত্বদের রাজনীতিতে যোগ দেওয়া প্রসঙ্গে জিজ্ঞেস করা হয়েছিল। প্রশ্ন করা হয়েছিল, এবার কি বলি অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাউতকে তাঁর আসন মথুরা থেকে নির্বাচনে লড়তে দেখা যাবে?

Hema Malini

একথা শোনার পর সঙ্গে সঙ্গে বলিপাড়ার ‘ড্রিম গার্ল’ বলেন, ‘কাল রাখি সাওয়ান্তও নির্বাচনে লড়তে নেমে পড়বেন’। আর রাখির নাম নেওয়া হয়েছে অথচ তিনি সেই প্রসঙ্গে কিছু বলবেন না এমনটা তো হয় না। সঙ্গে সঙ্গে এই বিষয়ে নিজের প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন ‘ম্যায় হু না’ অভিনেত্রী।

হেমার বক্তব্য প্রসঙ্গে কথা বলার সময় রাখি বলেন, ‘আজ আমি খুব খুশি। আসলে এটা একটা সিক্রেট ছিল। ২০২২ (আসলে ২০২৪)  সালের নির্বাচনে আমি লড়তে চলেছি। এই সংবাদটি মোদী জি এবং আমাদের অমিত শাহ জি ঘোষণা করতেন। তবে এটা আমার সৌভাগ্য যে এই সংবাদটি আমার হৃদয়ের ড্রিম গার্ল, আমার সুইটহার্ট , আমার হেমা মালিনী জি- আমার ডার্লিং ঘোষণা করেছেন যে এবারের নির্বাচনে আমি লড়তে চলেছি’।

Rakhi Sawant

এখানেই থামেননি ‘বিগ বস’ খ্যাত এই অভিনেত্রী, রাখির সংযোজন, ‘আসলে আমার বিষয়ে মোদী এবং অমিত শাহ জি ঘোষণা করতেন। কিন্তু মোদী জি হোক বা হেমা মালিনী জি হোক, বিষয়টতা একই। আমি স্মৃতি ইরানি পার্ট ২। আমি খুব খুশি। আমি এবার নির্বাচনে লড়ব, হ্যাঁ আমি লড়ব। আপনারা সবাই আমার সঙ্গে থাকবেন তো? ধন্যবাদ হেমা মালিনী জি আপনি আমার বিষয়ে এত সুন্দর কথা বলেছেন। ধন্যবাদ’।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Viral Bhayani (@viralbhayani)

রাখি এরপর প্রশ্নও করেন যে, চা বিক্রি করে যদি একজন প্রধানমন্ত্রী হতে পারেন, তাহলে তিনি বলিউডে কাজ করে নিদেনপক্ষে মুখ্যমন্ত্রী হতে পারবেন না? তবে অভিনেত্রীর এই প্রশ্নের উত্তর রাজনীতিতে যোগ দেওয়ার পর জানা গেলেও, তাঁর রাজনীতিতে যোগ দেওয়ার সংবাদে নেটিজেনদের একাংশের মাথায় যেন আকাশ ভেঙে পড়েছে। একজন নেটাগরিক লিখেছেন, ‘না। কোনোদিন না। রাখি বলে দাও এটা মিথ্যে। প্লিজ।‘ আরেকজন আবার কটাক্ষের সুরে লিখেছেন, ‘এবার ঘোড়াদের দৌড়ে গাধারাও দৌড়বে’।

Related Articles

Back to top button