গানবিনোদন

একসময় indian idol- এ গান গেয়ে কুড়িয়েছিলেন প্রশংসা! আজ অর্থের অভাবে দারিদ্রতায় ভুগছেন এই যুবক

জনপ্রিয় শো ইন্ডিয়ান আইডল (Indian Idol) এর সুবাদে প্রতি বছরই এক গুচ্ছ প্রতিভা আত্মপ্রকাশ করে। শুধু তাই নয় ইন্ডিয়ান আইডল থেকে বেরোনো মানেই বলিউডেও গানের সুযোগ। চলতি বছরে ইন্ডিয়ান আইডলের সিজন ১৩ বিশাল জনপ্রিয় হয়েছিল। আর এইবার বিজেতা হয়েছিলেন পবনদ্বীপ রাজন ( Pawandeep Rajan), দ্বিতীয় হয়েছিলেন অরুণিতা কাঞ্জিলাল (Arunita Kanjilal)। এছাড়াও লাইমলাইটে ছিলেন সায়নী কাম্বলে, দানিশ মোহাম্মদ,নিহাল ও সম্মুখ প্রিয়া।

ইতিমধ্যেই এই সিজনের প্রতিযোগিরা বিভিন্ন কনসার্টে দাপিয়ে অনুষ্ঠান করে বেরাচ্ছেন। ধীরে ধীরে বিভিন্ন বলিউড প্লেব্যাক ও পাচ্ছেন তারা। তাই তাদের অর্থ বা কাজের জন্য পিছন ফিরে তাকাতে হয়নি। এই প্রতিযোগীদের মধ্যেই অন্যতম ছিলেন সাওয়াই ভাট।

কিন্তু আর ৫ জন প্রতিযোগির মতো মোটেই তার ভাগ্য সহায় হয়নি। সম্প্রতি এই প্রতিযোগীর প্রথম অ্যালবামের গান মুক্তি পেয়েছে। হিমেশ রেশমিয়া এই প্রতিযোগীকে গান গাওয়ার সুযোগ দিয়েছিলেন, আর ইউটিউবে ইতিমধ্যেই ট্রেন্ডও করছে এই গান। জুলাই প্রকাশিত হওয়া এই গানের ইতিমধ্যেই দর্শক সংখ্যা প্রায় ১২ লাখের কাছাকাছি।

শো চলাকালীন এই প্রতিযোগীর গানে মজ মজেছিল দর্শকদের। এমনকি অমিতাভ বচ্চনের নাতনি একটিবার তার গান শুনে রীতিমতো ভক্ত হয়ে গিয়েছিলেন সাওয়াইয়ের। তবে ছোট থেকে বেজায় দারিদ্রে কেটেছে তার জীবন। ইন্ডিয়ান আইডলের আগে, গ্রামে গ্রামে পুতুল খেলা দেখিয়ে তিনি পয়সা রোজগার করতেন।

কিন্তু আজকাল আর এই শিল্পের কদর কই? তাই তার অবস্থা ক্রমেই খারাপ হতে থাকে। ইচ্ছে ছিল নিজের একটি পাকাবাড়ি বানাবেন তিনি। কিন্তু রাজস্থান সরকারের কাছে কোনোওরকম সাহায্য পাননি সাওয়াই। তবে নিজের প্রতিভার উপর বিশ্বাস রেখে আজও লড়ে চলেছেন তিনি৷ তিনি আশাবাদী একদিন তার ভাগ্যের শিকে ছিঁড়বে। ইতিমধ্যেই হিমেশের হাত ধরে তার ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন হতে শুরু করেছে। হয়ত একদিন আর পিছন ফিরে তাকাতে হবেনা তাকে।

Related Articles

Back to top button