বিনোদন

কোনও দোষ করেনি শাহরুখ পুত্র! মাদক মামলায় বেকসুর আরিয়ান খান, ঘোষণা NCB এর

২রা অক্টবর ২০২১ তারিখটা যেন বিভীষিকার মত আরিয়ান খানের (Aryan Khan) কাছে। এই রাতেই মাদক কাণ্ডে ধরা পড়েন শাহরুখ খানের (Shahrukh Khan) ছেলে আরিয়ান। স্বাভাবিকভাবেই খবর প্রকাশ্যে আসতে সময় লাগেনি। এরপর ২৫ রাত জেলে কাটাতে হয়েছে আরিয়ানকে। গোটা ঘটনায় যে খান পরিবারের ভালো রকম মুখ পুড়েছিল তা বলাই বাহুল্য। ছেলেকে জেল থেকে ছাড়াতে কাল ঘাম ছুটে গিয়েছিল বলি বাদশার।

একগুচ্ছ শর্তের বিনিময়ে জামিন মঞ্জুর করা হয় শাহরুখ পুত্র আরিয়ান খানের। তবে জেল থেকে ছাড়া পেলেও তদন্ত জারি থাকে। সত্যিই কি মাদক নিয়েছিলেন আরিয়ান? মাদক পাচারের সাথে যুক্ত আছেন কি না? এই সমস্ত বিষয় খুঁটিয়ে দেখা হচ্ছিল। ঘটনার দিন রাত্রে গোয়া গামী কার্ডেলিয়া শিপে হাই প্রোফাইল রেভ পার্টি চলছিল। সেই ক্রুজশিপ পার্টিতেই বেআইনিভাবে মাদক সেবনের অভিযোগ ওঠে শাহরুখ খানের ছেলে আরিয়ান খানের বিরুদ্ধে। রাতারাতি এনসিবির হাতে গ্রেফতার হন শাহরুখ পুত্র।

No evidence found against aryan khan in mumbai drug case

এই মামলায় আরিয়ান সহ মোট ১৯ জনকে গ্রেফতার করেছিলেন সমীর ওয়াঙখেড়ের নেতৃত্বাধীন NCB-র দল। প্রধান অভিযুক্তদের তালিকায় ছিলেন আরিয়ান খান, আরবাজ মার্চেন্ট ও মুনমুন ধমেচা। আরিয়ান জড়িয়ে পড়ায় একেরপর এক প্রশ্ন উঠেছিল মাদক মামলায়। প্রশ্ন উঠেছিল, শাহরুখের ছেলের কাছে ড্রাগস না-থাকা সত্ত্বেও কেন তিনি গ্রেফতার হলেন ।

অনেকেই গোটা ঘটনায় পাচ্ছিলেন রাজনীতির গন্ধ। বাতাসে যত্র তত্র শোনা যাচ্ছিল, শাহরুখের ২৪ বছরের ছেলেকে ষড়যন্ত্র করে ফাঁসানো হয়েছে। অবশেষে সমস্ত সমালোচনা অপমানের যোগ্য জবাব দিল খান পরিবার৷ এদিন নারকোটিক্স কনট্রোল ব্যুরো মাদক মামলায় বেকসুর ঘোষণা করে শাহরুখ পুত্র আরিয়ানকে। অবশেষে মন্নতে জয়ের হাসি। ফের ওই অন্ধকার সময়ের কথা ভুলে সাধারণ জীবনে ফিরছেন আরিয়ান। শিগগিরই বলিউড পরিচালক হিসেবে শুরু করবেন কাজ।

Related Articles

Back to top button