খবরবিনোদন

কোল্ড ড্রিঙ্কসে মাদক মিশিয়ে করা হতো ভিডিও শুট! পর্ণকাণ্ডে বিস্ফোরক মন্তব্য পরী পাসোয়ানের

পর্নগ্রাফিক কনটেন্ট বানানোর অভিযোগে গত ১৯ জুলাই গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলিউড অভিনেত্রী শিল্পা শেঠির স্বামী রাজ কুন্দ্রাকে (Raj Kundra) । এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে শোরগোল পড়ে যায় গোটা দেশে। স্বামীর এই কুকীর্তির জেরে লাগাতার শিরোনামে রয়েছেন শিল্পা শেঠি। লাগাতার নেটিজেনদের নিত্যনতুন ট্রোলের মুখে পড়েছেন তিনি। আর এই ঘটনার প্রভাব পড়েছে শিল্পার ফিল্মি কেরিয়ারে।

রাজের গ্রেফতারির পর থেকে ইতিমধ্যেই তাঁর বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগ এনেছেন একাধিক অভিনেত্রী। এবার কোল্ড ড্রিঙ্কসের মধ্যে মাদক মিশিয়ে দিয়ে অজ্ঞান করে পর্ন ভিডিয়ো শ্যুট করার বিস্ফোরক অভিযোগ আনলেন প্রাক্তন মিস ইন্ডিয়া ইউনিভার্স পরী পাসোয়ান (Pari Paswan)। এই ঘটনা প্রকাশ্যে আসতেই ফের একবার শোরগোল পড়ে গিয়েছে বিটাউনে।

জানা গেছে ঝাড়খন্ডের ধানবাদের বাসিন্দা পরী পাসওয়ানের ছোট থেকেই মডেলিং করার স্বপ্ন ছিল। তাই সেই স্বপ্নের হাতছানিতেই পাড়ি দিয়ে ছিলেন বানিজ্য নগরী মুম্বাইতে। ২০১৯ সালে মিস ইন্ডিয়া ইউনিভার্স হওয়ার পর নীরজ পাসওয়ানের সাথে বিয়ে করেছিলেন তিনি। তবে একমাসের মধ্যেই সংসারে অশান্তি শুরু হলে স্বামী এবং শ্বশুরবাড়ির বিরুদ্ধে গার্হস্থ্য হিংসার অভিযোগ দায়ের করেন তিনি।

পরবর্তীতে তাঁর অভিযোগের ভিত্তিতে স্বামী নীরজকে গ্রেফতার করে পুলিশ। কিন্তু পরীর স্বামীর গ্রেফতারির পর তাঁর শ্বশুর বাড়ির লোকেরা তাঁর বিরুদ্ধে অশ্লীল ছবিতে অভিনয় করার অভিযোগ এনেছেন। সেই অভিযোগের জবাব দিতে গিয়েই পরী জানান, মডেলিংয়ের শুরুর দিকে মুম্বইয়ে এসে এহেন প্রতারণার শিকার হয়েছিলেন তিনি।

পরীর অভিযোগ সেসময় কাজ দেওয়ার টোপ দিয়ে এক প্রযোজনা সংস্থার অফিসে ডাকা হয়েছিল তাঁকে। সেখানেই তাঁর কোল্ড ড্রিঙ্কসের সঙ্গে মাদক মিশিয়ে তাঁকে খাওয়ানো হয়েছিল। আর তা খেয়ে অজ্ঞান হয়ে গিয়েছিলেন পরী। সেই সময় তাঁর পর্ন ভিডিও শুট করা হয়। যা পরে নেটদুনিয়ায় ছড়িয়ে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ পরীর। সেই সময় নাকি মুম্বইয়ের এক থানায় অভিযোগ দায়ের করেছিলেন তিনি। কিন্তু তাতে নাকি তিনি কোনো সহযোগিতা পাননি। তবে এই ঘটনার সাথে রাজ কুন্দ্রার সরাসরি কোনও যোগাযোগ রয়েছে নাকি তা এখনও জানা যায়নি।

Related Articles

Back to top button