ছবিবিনোদনসিরিয়াল

পর্দার মা কালীর বাস্তবে বেবি শাওয়ার! হাজির প্রিয় বন্ধু শ্রুতি থেকে স্বয়ং রামকৃষ্ণও

অপেক্ষার আর মাত্র কয়েকদিন তারপরে পর্দার মা ভবতারিণী অর্থ তনুশ্রী ভট্টাচার্যে বোসের( Tanushree Bhattacharya Bose) বাড়িতে আসছে নতুন অতিথি। এই মুহূর্তে মাতৃত্বের স্বাদ নিতে মুখিয়ে রয়েছেন অভিনেত্রী। তাই জীবনের এই বিশেষ মুহূর্ত গুলি প্রতিদিন চুটিয়ে উপভোগ করছেন তিনি। সদ্য সম্পন্ন হয়েছে তার স্বাদ ভক্ষণের অনুষ্ঠান। অভিনেত্রীর জীবনের সেই বিশেষ মুহুর্তের ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করেছিলেন তাঁর প্রিয় বান্ধবী তথা জনপ্রিয় অভিনেত্রী শ্রুতি দাস (Shruti Das)।

সেইসমস্ত ছবি একসাথে কোলাজ করে একটি ভিডিও বানিয়েছিলেন তনুশ্রী। সেখানে দেখা যাচ্ছে এদিন টুকটুকে লাল জামদানি আর লাল-সাদা হাকোবা ব্লাউজে সকলের নজর কেড়েছিলেন পর্দার মা কালী। সেইসাথে এই বিশেষ দিনে হাল্কা সোনার গয়না, আর কপালে সিঁদুর আর টিপ পরে পরিপাটি করে সেজেছিলেন তিনি। সব মিলিয়ে এদিন ভীষণ মিষ্টি লাগছিল এই হবু মাকে। ছবি দেখলেই বোঝা যাচ্ছে তাঁর চোখে-মুখে ফুটে উঠেছে প্রেগন্যান্সি গ্লো।

তনুশ্রীর এই বেবি শাওয়ারের (Baby Shaower) দিনে হাজির ছিলেন তাঁর প্রিয় সহ অভিনেতারা। সেই তালিকায় একদিকে যেমন রয়েছেন ত্রিনয়নী খ্যাত তাঁর প্রিয় বান্ধবী শ্রুতি দাস, অন্যদিকে তেমন রয়েছেন রানি রাসমণি সিরিয়ালের সৌরভ সাহা,রোশনি ভট্টাচার্য, এবং দিয়া মুখার্জীর মতো সহ অভিনেতা- অভিনেত্রীরাও।

 

এছাড়াও এদিনের অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন তনুশ্রীর শ্বশুরমশাই, বাবা, মা এবং স্বামী সহ পরিবারের একেবারে ঘনিষ্ঠ সদস্যরা। এদিনের অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।দিনটা ছিল তনুশ্রীর জীবনের একটা অন্যতম স্পেশাল দিন। তাই এই বিশেষ দিনে খাদ্য তালিকায় ছিল তনুশ্রীর পছন্দের সমস্ত খাবার। হবু সন্তানের আসার অপেক্ষায় এখন থেকেই দিন গুনছেন অভিনেত্রী।

 

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Shruti Das (@shrutidas_real)

গোটা বিষয়টা নিয়েই দারুন উচ্ছসিত তনুশ্রী। এপ্রসঙ্গে সংবাদমাধ্যমে তিনি জানিয়েছেন ‘আমি ভীষণ আনন্দ পাচ্ছি। বেশ নড়াচড়া করছে ও। বুঝতে পারছে হয়তো আমার হ্যাপি মোমেন্ট। আমি আনন্দে থাকলে ও দেখছি বেশি সাড়া দিচ্ছে।’ উল্লেখ্য কিছুদিন আগেই তনুশ্রী জানিয়েছিলেন সন্তান হওয়ার ছ’মাস পর থেকেই নিজেকে গ্রুম করা শুরু করবেন তিনি। তারপর আবার ফিরবেন কাজে। তাঁর কথায় ‘মা হওয়ার পর কাজে না ফিরলে আমি নিজের আমিটাকেই হারিয়ে ফেলব বলে মনে হয়।’

Related Articles

Back to top button