খবরবিনোদন

সোনু সুদকে প্রধানমন্ত্রী করা হোক! সোশ্যাল মিডিয়ায় সরব নেটিজেনরা, দাবি রাখি সাওয়ান্তেরও

কথায় বলে ‘নিঃস্বার্থ’ বলে কিছুই হয়না। কিন্তু এই ধারণাকে আমূল বদলে দিয়েছেন দক্ষিণী অভিনেতা সোনু সুদ (Sonu sood)। রবিনহুড’ বললেও কিছু ভুল হয়না অভিনেতা সোনু সুদ-কে। গতবছর করোনাকাল থেকে একাধিকবার দুর্গতদের ত্রাতার ভূমিকায় দেখা গেছে বিখ্যাত বলিউড তথা দক্ষিণী অভিনেতা সোনু সুদকে।

কখনও পরিযায়ী শ্রমিকদের বাড়ি ফেরানো, তো কখনও আবার স্মার্টফোনের জন্য পড়াশোনা বন্ধ হতে বসা ছাত্রীদের দায়িত্ব নেওয়া, দরিদ্র পরিবারকে ইরিক্সা দিয়ে তাদের পাকাপাকি রোজগারের ব্যবস্থা করে দেওয়ার মত– একের পর এক মানবিক পদক্ষেপ নিয়ে সোনু সুদ ভারতের জনগণের কাছে এখন কার্যতই ‘সুপার হিরো’। নিজের ভাল কাজের জন্য ঘরে বাইরে তুমুল ভাবে প্রশংসা আর আশীর্বাদ কুড়িয়েছেন সোনু সুদ ৷

দেশজুড়ে চারিদিকে হাহাকার, অর্থ, ওষুধ, বাসস্থান, কিংবা খাদ্যের অভাবে যখন মানুষ ধুঁকছেন। একটি বার সোনুর কানে কথা পৌঁছানো মাত্রই সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন অভিনেতা। গোটা একটা বছরে অক্লান্ত ভাবে তিনি করে চলেছেন মানব সেবা, করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের তার কাজ অব্যাহত রয়েছে।

চারিদিকে চলছে গণচিতা। রোজ পাল্লা দিয়ে বাড়ছে আক্রান্ত এবং মৃতের সংখ্যা। অকালে ঝড়ে যাচ্ছে কত প্রাণ। এমতাবস্থায় অসংখ্য ঘর হারা মানুষের ঘর, স্বজনহারাদের আত্মীয় হয়ে উঠেছেন সোনু। অন্যদিকে সরকারের অপারগতা নিয়েও উঠছে প্রশ্ন। এখন সোশ্যাল মিডিয়া সরব এই দাবিতে, যে সোনু সুদকেই প্রধানমন্ত্রী করা হোক। এবার নেটিজেনদের এই বক্তব্যের সঙ্গে সহমত হলেন অভিনেত্রী রাখি সাওয়ান্ত-ও।

যদিও এই আর্জি কানে যাওয়া মাত্রই সোনুর সাফ বক্তব্য, “আমি সাধারণ মানুষ হিসেবেই ভালো আছি।” রাজনীতির ময়দান যে তাঁর জায়গা নয়, তাও এদিন স্পষ্ট করে দেন সোনু। প্রিয়াঙ্কা চোপড়াও হাত মিলিয়েছেন সোনুর সাথে। সবমিলিয়ে এই পরিস্থিতিতে মোদীর থেকেও সোনুকেই বেশি যোগ্য বলে মনে করছেন দেশবাসীর একাংশ।

Related Articles

Back to top button