বিনোদনসিরিয়াল

খড়কুটোতে মনখারাপের পর্ব! পটকা ফিরলেও বাড়ি ছেড়ে বেরিয়ে গেল সৌজন্য

অন্যান্য সব ধারাবাহিককে টেক্কা দিয়ে এখন টিআরপি (TRP) শীর্ষে রয়েছে জনপ্রিয় সিরিয়াল খড়কুটো (Khorkuto)। ৭.৩০ টা বাজলেই প্রতিটা বাড়িতেই একই সঙ্গে শুরু হয়ে যায় এই সিরিয়াল দেখার ধুম। তার একটাই কারণ, এই ধারাবাহিকে কাহিনির নতুনত্ব, একান্নবর্তী পরিবারে মিলেমিশে থাকার মজা আর, সৌগুনের মিষ্টি প্রেম।

ধারাবাহিকে সৌজন্যের ভূমিকায় অভিনয় করছেন কৌশিক রায় (Koushik Roy), গুনগুনের চরিত্রে রয়েছে টলিপাড়ার মিষ্টি মেয়ে অভিনেত্রী তৃনা সাহা (Trina Saha)। সৌজন্য গুনগুন দুজন দুজনকে ভালোবাসলেও বলে উঠতে পারেনা। আর তাদেরই কাছাকাছি আনার চেষ্টায় নানান কান্ড ঘটায় বাড়ির অন্যান্য সদস্যরা। সারাক্ষণই ঘরের ভিতরে লেগে থাকে হাসি মজা উল্লাস।

 

কিন্তু সম্প্রতি এই ‘খড়কুটো’ ধারাবাহিকেই নেমে এসেছে মনখারাপের আবহ। গুনগুনকে নিয়ে শান্তিনিকেতনে হানিমুনে এসেছিল বাড়ি সমস্ত সদস্যরা, কিন্তু দুঃখের বিষয় সকলে এলেও সৌজন্য ফের ইন্সটিটিউটের কাজের জন্য হানিমুনে যায়নি। অবশেষে পটকার প্ল্যানমাফিক গুনগুনের মিথ্যে জ্বরের কথা শুনে সৌজন্য শান্তিনিকেতন যায়। কিন্তু সব সত্যি জানার পর জরুরি কাজ ছেড়ে আসতে হয়েছে বলে পটকার উপর বেজায় রেগে যায় সৌজন্য।

আর তারপর থেকেই সাজানো হাসিখুশি পরিবারে নেমে আসে মনখারাপ। বাবিনের মুখে এত কড়া ভাষা শুনে সহ্য করতে না পেরে সমস্ত আনন্দ ছেড়ে পটকা ফিরে যায় বাড়িতে, সিদ্ধান্ত নিয়ে নেয় চাকরিতে বদলি নিয়ে উত্তর বঙ্গে চলে যাবে সে। আর হাসিখুশি পটকার এই হঠাৎ পরিবর্তনের দায় সকলেই চাপায় সৌজন্যের উপর। একেরপর এক আঙুল তুলে সবকিছুর জন্য দায়ী করে কাঠগড়ায় তোলা হয় সৌজন্যকে।

 

আর এরপরেই সৌজন্য সমস্ত দোষ করে সিদ্ধান্ত নেয়, তার জন্যই যখন সব সমস্যা এবার পাকাপাকি ভাবে বাড়ি ছাড়বে সে। আসন্ন পর্বের একটি ক্লিপে দেখা যাচ্ছে, ফোনে পাওয়া যাচ্ছেনা সৌজন্যকে, রাগ করে বাড়ি ছেড়েছে সে। আর তাই নিয়ে এবার বেজায় চিন্তায় পড়েছে বাড়ির সকলেই।

Related Articles

Back to top button