বিনোদনসিনেমা

সিদ্ধার্থের সাথে ব্রেকআপের জল্পনার অবসান! নিজের মুখে আসল সত্যি জানালেন কিয়ারা

সেলিব্রিটি হওয়ার এই এক সমস্যা! প্রেম হোক কিংবা বিয়ে বলিউড সেলিব্রেটিদের ব্যক্তিগত জীবন বলে যেন  কিছুই নেই। গতবছরের মাঝামাঝি সময়ে জনপ্রিয় ‘শেরশাহ’ সিনেমা মুক্তির পর থেকেই টিনসেল টাউনে জোর গুঞ্জন বলিউড অভিনেতা সিদ্ধার্থ মালহোত্রা (Sidharth Malhotra) এবং অভিনেত্রী কিয়ারা আডবানি (Kiara Advani) প্রেম করছেন। সূত্রের খবর এই সিনেমার শুটিং থেকেই শুরু হয় তাদের পরম কাহিনী।

তাই ভক্তরা আশায় বুক বাঁধেন পর্দায় পরিণতি না পেলেও বাস্তবে পরিণতি সিদ্ধার্থ কিয়ারা জুটির সম্পর্ক। আর তারকাদের প্রেমের খবরের পরেই আসে বিয়ের গুঞ্জন। এই তারকার প্রেমের গুঞ্জনা এক সময়ে সরগরম হয়ে ওঠে পেজে থ্রীর পাতা। নিয়মিত একসঙ্গে বেড়াতে যাওয়া থেকে শুরু বিভিন্ন ইভেন্টেও একই সাথে ধরা পড়তেন পাপারাৎসির ক্যামেরায়।

এমনসময় হঠাৎ করেই দানা বাঁধে সিদ্ধার্থ কিয়ারা জুটির বিচ্ছেদের গুঞ্জন। কিন্তু সেই বিচ্ছেদ জল্পনার মাঝেই সালমান খানের বোনের বাড়িতে ঈদ পার্টিতে একসাথে ক্যামেরায় ধরা পড়েছিলেন বলিউডের এই লাভ বার্ডস। সেই জল্পনা থিতু হতেই করুন জোহরের জন্মদিনের পার্টিতে একে ওপরকে আলিঙ্গন করতে গিয়ে ক্যামেরা বন্দি হয়েছিলেন এই জুটি।
সেই থেকেই জানা যায় সিদ্ধার্থ কিয়ারার মধ্যে মিল করিয়ে দিতে নাকি বিশেষ ভূমিকা পালন করেছেন লাভগুরু করণ জোহর। আর এখন তো এও শোনা যাচ্ছে বিচ্ছেদ ভুলে একে অপরের কাছাকাছি আসার পর এখন নাকি আরো বেশি মজবুত হয়েছে সিদ্ধার্থ কিয়ারার সম্পর্ক। যদিও প্রেম কিংবা বিচ্ছেদ কোনোই বিষয় নিয়েই এখনো পর্যন্ত মুখ খোলেননি এই জুটি। আপাতত দুজনেই নিজেদের শুটিংয়ের কাজে ব্যস্ত। জানা যাচ্ছে শুটিং শেষে একসাথে বিদেশে ছুটি কাটাতে যাওয়ার পরিকল্পনা রয়েছে তাদের।
সিদ্ধার্থের সাথে ব্রেকআপ নিয়ে প্রতিক্রিয়া (Reaction) দিতে গিয়ে সম্প্রতি এক সংবাদমাধ্যমে মুখ খুলেছিলেন কিয়ারা। এ প্রসঙ্গে অভিনেত্রী বলেছেন ‘আমি আমার ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে একেবারেই খোলামেলা নই। আমি ভাগ্যবান পেশাগত দিক দিয়ে কখনো এমন কিছুর সম্মুখীন হতে হয়নি যা আমাকে আমার পরিবারকে প্রভাবিত করেছে। কিন্তু যখনই ব্যাক্তিগত ক্ষেত্রে কেউ দুইয়ে, দুইয়ে যোগ করে তখন সত্যিই বুঝতে পারি না এরা এসব পে কথা থেকে’। সেইসাথে অভিনেত্রী জানিয়েছেন এই ধরনের জল্পনায় কান না দিয়ে চুপ থাকাই ভাল। তবে তিনি জানতে চান এই ধরনের মসলাদার খবরের উৎস কি?

Related Articles

Back to top button