বিনোদনসিরিয়াল

সত্যিই পর্দায় ফিরছে ‘খড়কুটো’ জুটি, জল্পনায় শিলমোহর দিলেন ‘গুনগুন’ অভিনেত্রী তৃণা

স্টার জলসায় (Star Jalsha) সম্প্রচারিত অত্যন্ত জনপ্রিয় একটি ধারাবাহিক ছিল ‘খড়কুটো’ (Khorkuto)। গুনগুন এবং সৌজন্যের দুষ্টু মিষ্টি প্রেম কাহিনী দর্শকদের শুরু থেকে প্রচণ্ড পছন্দের ছিল। এই বছরই শেষ হয়েছে ‘সৌগুন’এর পথচলা। তবে এবার গুনগুন (Gungun)-সৌজন্যের (Soujanya) অনুরাগীদের জন্য সুখবর রয়েছে। ‘খড়কুটো’ শেষ হওয়ার কয়েকমাসের মধ্যেই নতুন সিরিয়াল নিয়ে পর্দায় ফিরছেন তাঁরা।

‘পর্দায় গুনগুন এবং সৌজন্যের চরিত্রে অভিনয় করে দর্শকদের মন জয় করে নিয়েছিল অভিনেত্রী তৃণা সাহা (Trina Saha) এবং অভিনেতা কৌশিক রায় (Koushik Roy)। ধারাবাহিকের চরিত্র থেকে তাঁরা হয়ে উঠেছিলেন দর্শকদের পরিবারের সদস্য। তাই স্বাভাবিকভাবেই ‘খড়কুটো’ শেষ হওয়ার পর ‘সৌগুন’কে আর দেখতে পাবে না বলে মন খারাপ হয়ে গিয়েছিল দর্শকদের একাংশের। কিন্তু এবার আর মন খারাপ করে থাকার কথা নেই।

Gungun Soujanya

বেশ কয়েকদিন ধরেই শোনা যাচ্ছিল, ফের একসঙ্গে পর্দায় ফিরতে চলেছেন তৃণা এবং কৌশিক। লীনা গঙ্গোপাধ্যায়ের নতুন ধারাবাহিকেই ফের একসঙ্গে দেখা যাবে তাঁদের। তবে বড় চমক ছিল অন্য জায়গায়। জানা গিয়েছিল, এই ধারাবাহিকে তৃণা-কৌশিকের সঙ্গেই থাকবেন ‘ধুলোকণা’র লালন অভিনেতা ইন্দ্রাশিস রায়ও।

এতদিন ধরে সম্পূর্ণ বিষয়টিই জল্পনার স্তরেই ছিল। তবে এবার সমস্ত গুজবে শিলমোহর দিয়ে দিলেন পর্দার গুনগুন নিজে। সম্প্রতি আনন্দবাজার অনলাইনের তরফ থেকে অভিনেত্রীর সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়েছিল। তখনই তাঁর, কৌশিক এবং ইন্দ্রাশিসের নতুন সিরিয়াল নিয়ে প্রথমবার মুখ খোলেন তৃণা।

Gungun Soujanya Lalon, Trina Koushik Indrasish, Trina Saha Koushik Roy Indrasish Roy

গুঞ্জন শোনা গিয়েছিল, এবার রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটে তৃণা, কৌশিক ও ইন্দ্রাশিসের ধারাবাহিকের গল্প সাজানো শুরু করেছেন লীনা। এই বিষয়ে ‘খড়কুটো’ অভিনেত্রী বলেন, ‘আমায় এখন প্রশ্ন করলে কিছুই উত্তর দিতে পারব না। লীনাদি এবং স্টার জলসার প্রোজেক্ট শুনেই হ্যাঁ করে দিয়েছি। তবে এর থেকে বেশি কিছু বলতে পারব না’।

কৌশিক, তৃণা এবং ইন্দ্রাশিস- তিনজনেই এখন নিজেদের কাজে ব্যস্ত। সেই কারণে একসঙ্গে বসে চিত্রনাট্য পড়া হয়ে উঠছে না তাঁদের। তিনজন একসঙ্গে বসলেই সবটা ঠিক হবে। তবে নতুন ধারাবাহিকেও কি ‘সৌগুন’ জুটিকে দেখতে পাবে দর্শকরা? কী বলছেন তৃণা? অভিনেত্রী জবাবে বলেন, ‘আজকাল মনে হয় একই জুটিকে বারবার দেখানো ট্রেন্ডে আছে। তবে আমার কোনোটাতেই সময়সা নেই। আমি ভালো কাজ করতে পারলেই খুশি’।

Related Articles

Back to top button