গসিপবিনোদন

নিজের প্রেমের জন্য ববি দেওলের কেরিয়ার নষ্ট করেছিলেন করিনা কাপুর ! আজও ক্ষোভ রয়েছে অভিনেতার

বলিউডের অন্দরে যে কত কেচ্ছা রয়েছে তার ইয়ত্তা নেই। কত যে সম্পর্ক ভেঙেছে তাও গুনতে বসলে শেষ হবেনা। সম্পর্ক তারা যেন জামাকাপড়ের মতো বদলান। এমন অসংখ্য নজির রয়েছে বলিপাড়ার তাবড় তাবড় অভিনেতা অভিনেত্রীদের নামে। এই তালিকায় নাম রয়েছে সইফ বেগম করিনা কাপুরের (Kareena Kapoor) -ও। এখন তিনি দুই বাচ্চার মা।

চলতি বছরেই করিনা জন্ম দিয়েছেন দ্বিতীয় সন্তানের৷ কিন্তু এক কালে তাঁর প্রেমিকদের লম্বা তালিকা ছিল। ৪০ এর করিনা আজ থেকে ২০ বছর আগে মাত্র ২০ বছর বয়সে ‘রিফিউজি’ ছবি দিয়ে তার কেরিয়ার শুরু করেছিলেন। তবে তার সেই ছবিটি তেমন সাফল্য পায়নি৷ ২০০৭ সালে ‘জব উই মেট’ সিনেমাটিই তার কেরিয়ারের মাইলফলক, তার এই ছবিটি বক্স অফিসে তুমুল জনপ্রিয়তা কুড়িয়েছিল। এই ছবিতে করিনা কাপুরের বিপরীতে অভিনয় করেছিলেন শাহীদ কাপুর৷

Kareena Kapoor

কিন্তু এইকথা হয়ত অনেকেরই অজানা এই ছবির নির্মাতাদের প্রথম পছন্দ ছিল শাহীদ নন, ববি দেওয়াল। অভিনেতা নিজেই একটি সাক্ষাৎকারে জানান, করিনা সেই সময় তার প্রাক্তন প্রেমিক শাহীদ কাপুরকে এই ছবিতে অভিনয়ের সুযোগ করে দেন। এর ফলে সানির হাত থেকে বেরিয়ে যায় এই ছবি।

Sahid Kareena Boby

ববি জানান, ‘শ্রী অষ্টবিনায়ক স্টুডিও আমার সঙ্গে কাজ করতে চেয়েছিল। আমি তাঁদের বলি পরিচালক ইমতিয়াজ আলির কাছে একটা ছবির স্ক্রিপ্ট তৈরি আছে। করিনা কাপুরের সঙ্গে নায়িকার চরিত্রের জন্য কথা বলা যেতে পারে। প্রযোজকরা তখন বলেন ইমতিয়াজ খুব খরচ করে ছবি বানান। তখন করিনাও ইমতিয়াজের সঙ্গে দেখা করতে চাননি। আমি তখন তাঁদের প্রীতি জিন্টার সঙ্গে দেখা করিয়ে দিই। প্রীতি রাজি হন। কিন্তু বলেন ছ’মাস পর থেকে কাজ শুরু করতে পারবেন। ফলে আমাদের অপেক্ষা করতে হয়’।

তিনি করিনার প্রতি ক্ষোভ উগড়ে দিয়ে আরও বলেন, তিনি এরপর শোনেন করিনা ছবিটা করবেন বলে সই করেছেন। আর ইমতিয়াজের উপর জোর খাটিয়ে শাহীদ কাপুরকে নায়কের চরিত্রে নিতে বাধ্য করেছেন।

 

Related Articles

Back to top button