বিনোদনসিনেমা

নিজেকে নারী হিসেবে পরিচয় দিতে অস্বীকার করলেন কঙ্কনা! লিঙ্গ বৈষম্য নিয়ে বিস্ফোরক অপর্ণা কন্যা

বলিউড থেকে টলিউড উভয় ইন্ডাস্ট্রিতেই নিজের অভিনয় দক্ষতার সাহায্যে বিশেষ ছাপ রেখেছেন অভিনেত্রী কঙ্কনা সেন শর্মা (Kankana Sen Sharma)। বরাবরই স্রোতের বিপরীতে হাঁটেন তিনি। তাই নিজের জীবনটাকে একেবারে নিজের মতো করে গুছিয়ে নিজের শর্তে বাঁচতে দু’বার ভাবেন না এই বঙ্গ তনয়া। তাই অভিনয় হোক কিংবা সামাজিক ধ্যান ধারণা সবদিক দিয়েই ভিন্ন পথের পথিক বাংলা জনপ্রিয় অভিনেত্রী তথা মহিলা পরিচালকা অপর্ণা সেনের (Aparna Sen) মেয়ে কঙ্কনা।

তাই ‘আলাদা’ শব্দটা যেন বরাবরের জন্য তার কথা ভেবেই তৈরি হয়েছে একথা বললে অত্যুক্তি হবে না। বরাবরই নিজেকে উদার দৃষ্টিভঙ্গি সম্পন্ন খোলা মনের মানুষ বলে দাবি করে আসা অভিনেত্রী সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে সমাজের লিঙ্গ বৈষম্য (Gender inequality) সংক্রান্ত প্রচলিত সমস্যা প্রসঙ্গে মতামত দিতে নিজের দৃষ্টিভঙ্গির কথা জানিয়েছেন। আর সেখানেই করা অভিনেত্রীর এক বিস্ফোরক মন্তব্য ঘিরে রীতিমতো শোরগোল পড়ে গিয়েছে চারদিকে।

এদিনের ওই সাক্ষাৎকারে কার্যত বোমা ফাটিয়ে নিজেকে নারী হিসেবে পরিচয় দিতে অস্বীকার করলেন কঙ্কনা। অভিনেত্রীর দাবি, ‘আমি নিজেকে একজন নারী হিসেবে মোটেই দেখি না। বরং বলা ভালো, একজন ‘নিউট্রাল’ মানুষ বলে মনে করি। লিঙ্গ তো আসলে একটি শিখিয়ে পড়িয়ে দেওয়া বিষয়, যা আমি ব্যক্তিগতভাবে একদমই বিশ্বাস করি না।’

কারণ বিশ্লেষণ করতে গিয়ে নিজের অভিনয়ের প্রসঙ্গ টেনে এনে অভিনেত্রী বলেন ‘ধরুন, যখন কোনও চরিত্রের জন্য আমাকে পর্দায় দারুণ নারীসুলভ আচরণ করতে হয়, তখন তা রীতিমতো আমাকে শিখতে হয়।’ তাই অভিনেত্রী মনে করেন তিনি এমন একজন মানুষ, যাঁর মধ্যে নারী এবং পুরুষ, উভয়েরই বৈশিষ্ট্য আছে। অর্থাৎ এককথায় নিজেকে এককথায় অ্যান্ড্রোজিনাস বলেই মনে করেন অভিনেত্রী।


অভিনেত্রীর এই উদার মানসিকতার ভীত তৈরি হয়েছিল একেবারে ছোটবেলা থেকেই। এপ্রসঙ্গে কঙ্কনা জানান ছোট থেকেই তাঁর মা অপর্ণা সেন এবং বাবা মুকুল শর্মা উদার চিন্তাভাবনায় বড় করে তুলেছেন তাকে। তাই কখনও সমাজের তথাকথিত গঁতে বাঁধা নিয়ম কানুনের বেড়া জালে কখনই নিজের জীবনকে আবদ্ধ রাখেননি অভিনেত্রী।

Related Articles

Back to top button