খবরবিনোদনসিনেমা

বেশি জ্ঞান দিতে গিয়ে মুখ পুড়েছে, ট্র্রোল হয়ে শেষমেশ সব পোস্ট উধাও, নেটপাড়া ছাড়ার সিধান জনের!

বলিউডের অভিনেতাদের মধ্যে বেশ পপুলার তথা হ্যান্ডসাম অভিনেতা জন আব্রাহাম (John Abraham)। হটাৎ করেই বিয়ের মরশুমে শিরোনামে উঠে এসেছেন অভিনেতা। কারণ আচমকাই নিজের সোশ্যাল মিডিয়া থেকে সমস্ত পোস্ট ডিলিট করে দিয়েছেন তিনি। কান্ড দেখেই সকলের মাথায় একটাই প্রশ্ন হটাৎ কি এমন হল, যে সব পোস্ট উড়িয়ে দিতে হল! এমনকি ছবিটা পর্যন্ত নেই। তবে কি হ্যাক হল জন আব্রাহমের ইন্সটা?

বলিউডের সিনেমার দৌলতে ব্যাপক জনপ্রিয়তা রয়েছে অভিনেতার। সোশ্যাল মিডিয়াতে অর্থাৎ ইনস্টাগ্রামে ৯৭ লক্ষেরও বেশি ফলোয়ার রয়েছে তাঁর। এমনকি নিজেও পছন্দের ১০৮ জনকে ফলো করেন। মাঝে ছবি থেকে ভিডিও শেয়ার করতেন ইনস্টাগ্রামে। এমনকি কিছুদিন আগেই শেষ মুক্তি পাওয়া ছবি ‘সত্যমেব জয়তে ২’ ছবির ভিডিও শেয়ার করেছিলেন ইন্সটাতে। তাহলে হটাৎ সমস্ত কিছু উড়ে গেল কেন?? এই নিয়ে চিন্তায় পরে গিয়েছে অভিনেতার অনুগামীরা।

জন আব্রাহাম,John Abraham

এদিকে ইন্সটাগ্রাম থেকে সব উধাও হলেও ফেসবুক আর টুইটারে কিন্তু দিব্যি সব আগের মতোই রয়েছে। তাহলে কি সত্যি সত্যিই হ্যাক হয়ে গেল অভিনেতার অ্যাকাউন্ট? কারণ সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর টুইটার অ্যাকাউন্ট হ্যাক হয়ে যায় কিছুক্ষণের জন্য। যদিও বাকি সোশ্যাল মিডিয়াতে এখনো পর্যন্ত কোনো কিছুই ঘোষণা করেননি অভিনেতা। তাই অনেকের মতে হ্যাক হয়নি অন্য কোনো কারণ রয়েছে হয়তো।

সম্প্রতি জন আব্রাহাম ‘সত্যমেব জয়তে ২’ ছবির প্রোমোশনের জন্য হাজির হয়েছিলেন দ্য কপিল শর্মা শোতে। সেখানে হার্ট অ্যাট্যাকের কারণ ব্যাখ্যা করে শোনান অভিনেতা। জনের মতে, খাবার জলে তেল দিলে যেমন বুদ্বুদ ওপরে ভাসে তেমনি রক্তের মধ্যে থাকে ট্রাইগ্লিসারাইড (এক ধরণের ফ্যাট)। যখনই মানুষের শরীরে স্ট্রেস বেড়ে যায় তখন সেগুলো হার্টে পৌঁছে হার্ট অ্যাট্যাক ঘটায়।

রিয়্যালিটি শোয়ের মঞ্চে অভিনেতার মুখে এমন ব্যাখ্যা শুনে শুরু হয়েছে ট্রোলিং। কারণ যে ট্রাইগ্লিসারাইডকে ক্ষতিকারক ফ্যাট বলেছেন অভিনেতা সেটা আসলে শরীরের চাহিদার থেকে বেশি খাবার খেলে পরিবর্তিত হয়ে তৈরী হয়। পরে প্রয়োজনে হরমোনের প্রভাবে তা আবার ক্যালোরিটা পরিবর্তিত হয়। তাই ভুল ব্যাখ্যা দিয়ে নেটিজেনদের ব্যাপক ট্রলার শিকার হতে হয়েছে জনকে।

নেটিজেনদের কিছু অংশের মতে, ট্রোলিং সহ্য না করতে পেরেই ইনস্টাগ্রাম ত্যাগ করেছেন জন আব্রাহাম ,যদিও আসল ব্যাপার কি সে বিষয়ে এখনো পর্যন্ত কোনো কিছুই জানান নি অভিনেতা নিজে। তাই আপাতত অফিসিয়াল মন্তব্যের অপেক্ষাতেই রয়েছে সকলে।

Related Articles

Back to top button