লাইফ স্টাইল

দাগহীন উজ্জ্বল ত্বক পেতে চান! দোকান থেকে কিনে নয় বাড়িতেই বানান দুধের ফেসপ্যাক, রইল পদ্ধতি

দাগহীন উজ্জ্বল ত্বক (Glowing Skin) পুরুষ মহিলা সকলেই চান।  তবে আজকালকার দিনে রূপচর্চা মানেই দামি দামি সমস্ত ক্রিম আর কেমিক্যাল। এতে সাময়িকভাবে সৌন্দর্য বৃদ্ধি পেলেও আদতে লাভ কতদূর হয় সে ব্যাপারে অনেকেরই সন্দেহ রয়েছে। অথচ আমাদের পূর্বপুরুষ মা সোজা ভাষায় বলতে গেলে মা দিদিমারাই দিব্যি কোনো ক্রিম মেখে প্রাকৃতিকভাবেই কতটা সুন্দরী ছিলেন। তাই আজ দোকান থেকে কিনে নয়, বাড়িতেই দুধের ফেসপ্যাক (Homemade Milk Facepack) তৈরির পদ্ধতি দেখে নেব।

দুধের গুণ সম্পর্কে আলাদা করে বলার কিছুই নেই। বাচ্চা থেকে বুড়ো সকলেই দুধের উপকারিতার সম্পর্কে জানে শরীরের জন্য যেমন উপকারী দুধ তেমনি রূপচর্চার ক্ষেত্রেও দুধের গুরুত্ব রয়েছে বেশ। আর ত্বকের সৌন্দর্য রক্ষায় কাঁচা দুধের ব্যবহার সেই প্রাচীন কাল থেকেই চলে আসছে। সুতরাং দুধের ফেসপ্যাক ব্যবহার করলে তৈলাক্ত বা শুষ্ক যেকোনো ত্বকেই জেল্লা ফিরতে বাধ্য।

Skin Care with Milk Facepacks

খুব সজজেই বাড়িতে কাঁচা দুধের সাথে অল্প কিছু উপাদান মিশিয়ে ফেসপ্যাক তৈরী করে নেওয়া যায়। যেগুলো দোকানের কেমিক্যাল মেশানো ফেসপ্যাকের থেকে অনেক বেশি সুরক্ষিত আর ত্বকের যত্নে একেবারে ম্যাজিকের মত কাজ করে। আজ বংট্রেন্ডের পর্দায় তিন ধরণের দুধের ফেসপ্যাক তৈরী সম্পর্কে জনাব। চলুন দেখে নেওয়া যাক এই ফেসপ্যাক গুলি কিভাবে বানাবেন ও ব্যবহার করবেন।

১. কাঁচা দুধ, ওটস আর মধু দিয়ে ফেসপ্যাক 

অনেকেরই ত্বক তৈলাক্ত প্রকৃতির হয়। আর তৈলাক্ত ত্বক হবার কারণে বাইরের ধুলোবালি মুখে লেগে ত্বকের বারোটা বেজে যায়। এক্ষত্রে একটা বাটিতে কাঁচা দুধ, ২-৩ চামচ ওটস আর ১-২ চামচ মধু মিশিয়ে নিয়ে পেস্ট মত তৈরী করে নিতে হবে। আর সেই পেস্ট মুখে লাগিয়ে ১৫-২০ মিনিট রেখে ধুয়ে ফেলতে হবে। এভাবে সপ্তাহে ১-২ বার করলেই হাতেনাতে ফলাফল পাবেন।

২. কাঁচা দুধ, কলা ও মধুর ফেসপ্যাক 

শীতের সময় ত্বকের উজ্জ্বলতা বজায় রাখার পাশাপাশি ত্বককে ময়েশ্চারাইজড রাখতে হয়। এক্ষেত্রে কাঁচা দুধ, কলা ও মধুর ফেসপ্যাক দারুন কাজে আসে। একটা পাত্রে সামান্য দুধ, একটা পাকা কলা আর ২ চামচ মধু ভালো করে চটকে মেখে নিয়ে মুখে ফেসপ্যাকের মত লাগিয়ে শুকিয়ে ধুয়ে নিলে দারুন উপকার পাওয়া যায়।

৩. কাঁচা দুধ, হলুদ, মুলতানি মাটির ফেসপ্যাক 

রূপচর্চায় দুধ যেমন উপকারী তেমনি কাঁচা হলুদ থেকে মুলতানি মাটিও বেশ উপকারী। এই তিন উপাদানকে একত্রে বেসনের সাথে ব্যবহার করলে দারুন উপকার পাওয়া যেতে পারে। এক্ষত্রে প্রথমে হলুদ বেটে নিতে হবে, তারপর সেটাকে দুধের মধ্যে মুলতানি মাটি আর বেসন সমেত মিশিয়ে নিতে হবে। তারপর এই মিশ্রণ ফেসপ্যাকের মত লাগিয়ে ৩০ মিনিট রেখে ধুয়ে ফেলতে হবে।

Related Articles

Back to top button