ধুঁকছে দেশ! অক্সিজেন কিনতে শখের বাইক বেচে দিলেন ‘সনম তেরি কসম’ খ্যাত অভিনেতা


করোনার (Coronavirus) দ্বিতীয় ঢেউয়ে রীতিমত সমস্যার সম্মুখীন ভারত। অক্সিজেন ও শয্যার অভাবে ধুঁকছে ভারতীয় স্বাস্থ্যকাঠামো। প্রত্যহ আক্রান্তের নিরিখে যেভাবে আন্তর্জাতিক তালিকার শীর্ষে উঠে আসছে ভারত, তাতে চিন্তিত কেন্দ্র। অন্যদিকে গণ-টিকাকরণ চালু করেও মিলছে না ফল, বণ্টনের গাফিলতি ও ভ্যাকসিনের অভাবের মত কারণে বেশ কিছু রাজ্যে বন্ধের মুখে ভ্যাকসিন পরিষেবা। এমতাবস্থায় পিপিই কিট (PPE Kit) পরে জনসাধারণের পাশে এসে দাঁড়িয়েছে স্বেচ্ছাসেবী সংস্থাগুলি। পাশাপাশি সাহায্যের নিরিখে পিছিয়ে নেই বলিউড (Bollywood) বা টলিউড (Tollywood) ইন্ডাস্ট্রি!

সম্প্রতি করোনা রোগীদের খাদ্য, ওষুধ এবং অক্সিজেনের জন্য এক কোটি টাকা দান করেছেন বলিউডের ‘খিলাড়ি’ (Khiladi) অক্ষয় কুমার (Akshay Kumar)। বলিউডের সুপারস্টার অজয় দেবগণও (Ajay Devgan) মুম্বইয়ের (Mumbai) শিবাজী পার্কে ২০ বেডের আইসিইউ (ICU) তৈরীর খাতে ১ কোটি টাকা অনুদান দিয়েছেন বিএমসি-কে (BMC)। সূত্রের খবর, অজয় দেবগণ নিজস্ব স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন এনওয়াই ফাউন্ডেশনের (NY Foundation) মাধ্যমে টাকা দান করেছেন।

harshvardhan rane

গত বছরের মত এ’বছরও করোনা মোকাবিলায় সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিলেন সলমান খান (Salman Khan)। মুম্বইয়ের করোনা যোদ্ধাদের খাবারের ব্যবস্থা করেছেন ভাইজান। পিছিয়ে নেই অভিনেতা সুনীল শেট্টিও (Sunil Shetty)। নিজের স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা কেভিএন ফাউন্ডেশনের (KVN Foundation) মাধ্যমে বিনামূল্যে মুম্বই ও বেঙ্গালুরুতে (Bengaluru) অক্সিজেন কনসেনট্রেটর (Oxygen Concentrator) দিচ্ছেন সুনীল।

করোনা-যুদ্ধে জয় সুনিশ্চিত করার লক্ষ্যে ‘মিশন অক্সিজেন ইন্ডিয়া’-য় (Mission Oxygen India) যুক্ত হলেন বলিউড তারকা বরুণ ধাওয়ান (Barun Dhawan)। সোশ্যাল মিডিয়া হ্যান্ডেলের মাধ্যমে এই খবর জানিয়েছেন অভিনেতা।

harshvardhan rane

অন্যান্য বলিতারকার পাশাপাশি মিশন অক্সিজেন ইন্ডিয়ায় যুক্ত হলেন তেলেগু তারকা হর্ষবর্ধন রানে (Harshvardhan Rane)। সম্প্রতি করোনা আক্রান্তদের সহায়তার জন্য নিজের পছন্দের বাইক বিক্রি করে সংবাদে এসেছেন এই তারকা। টুইটারে (Twitter) হর্ষবর্ধন লেখেন, “অক্সিজেন কনসেনট্রেটরের পরিবর্তে আমার বাইকের মায়া ত্যাগ করলাম। অক্সিজেন কনসেনট্রেটরগুলো পৌঁছে যাবে করোনা রোগীদের কাছে। হায়দ্রাবাদের কোথায় ভালো অক্সিজেন কনসেনট্রেটর পাওয়া যাবে, দয়া করে সেই খোঁজ দিয়ে আমাকে সাহায্য করুন।”