ছবিবিনোদনসিনেমা

স্বভাব কি আর সহজে যায়! জামিনে ছাড়া পেতেই আবারো অর্ধনগ্ন ফটোশুটে মাতলেন গহনা বশিষ্ঠ

পর্নোগ্রাফিক কনটেন্ট বানানোর অভিযোগে শিল্পা শেঠির স্বামী রাজ কুন্দ্রাকে গ্রেফতার করার পর থেকেই একের পর এক প্রকাশ্যে আসতে শুরু করে নানা গুরুত্বপূর্ণ তথ্য। জুলাই মাসের শেষের দিকেই জোর করে অশ্লীল ছবিতে অভিনয় করানোর জন্য মামলা দায়ের করা হয়েছিল রাজ কুন্দ্রার তিন সহকর্মী এবং গহনা বশিষ্ঠের (Gehna Vasisth) বিরুদ্ধে।

তবে শুরু থেকেই একমাত্র গহনাই ছিলেন যিনি রাজের বিরুদ্ধে নয় বরং তার সমর্থনে মুখ খুলেছিলেন। তিনি দাবি করেছিলেন , পর্ন এবং যৌন উদ্দীপক ছবির মধ্যে মূলগত পার্থক্য রয়েছে। রাজ কখনওই পর্ন বানাননি। তাঁকে ফাঁসানো হচ্ছে । অন্যদিকে নিজের বিরুদ্ধে ওঠা সমস্ত অভিযোগ ফুৎকারে উড়িয়ে দিয়ে গহনার দাবি ছিল যে মহিলা তার বিরুদ্ধে অভিযোগ জানিয়েছিলেন তা মিথ্যে , তাঁকে ফাঁসানো হচ্ছে। এমনকি জোর দিয়ে তিনি জানান তিনি কাউকে কোনও ভিডিয়োয় অভিনয়ের জন্য জোর করেননি।

পর্ন ছবি বানানো এবং তা ছড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগে গ্রেফতার হয়েছিলেন গহনা। জামিনে মুক্তি পেয়েই ফের একবার সাহসী ফটোশ্যুট করে সাড়া ফেলে দিয়েছেন এই মডেল-অভিনেত্রী। ইনস্টাগ্রাম প্রোফাইলে সেই ফটোশ্যুটের ছবি করেছেন গহনা। যেখানে তাকে কার্যত অর্ধনগ্ন অবস্থায় দেখা গেছে। ছবিতে দেখা যাচ্ছে, সামনের দিকে সাদা চাদর জড়িয়ে বিছানায় বসে রয়েছেন গহনা আর খোলা চুলে উন্মুক্ত পিঠ রেখেছেন ক্যামেরার দিকে।

ছবির ক্যাপশনে অভিনেত্রী লিখেছেন, ‘এই ছবি শ্যুট করার সময়ে প্রায় ২০ জন আমার আশপাশে ছিলেন। আমি নেশায় মত্ত ছিলাম না, সেটে কোনও সরবৎ খাইনি। সম্পূর্ণ জ্ঞানত অবস্থায় এই শ্যুট করেছি। অটো করে সেটে গিয়েছি। আবার শ্যুট শেষে অটো করেই বাড়ি ঢুকেছি। পুরো পারিশ্রমিক নিয়েছি। সব চেয়ে গুরুত্বপূর্ণ, আমার বয়স ১৮ বছরের বেশি। আমি এক জন প্রাপ্ত বয়স্ক।’

উল্লেখ্য পর্ণ কান্ডে রাজ কুন্দ্রার নাম জড়ানোর পর থেকে অনেকেই অভিযোগ করেছিলেন পানীয়ে মাদক মিশিয়ে তাদের অজান্তে পর্ণ শ্যুট করা হয়েছে। এদিন তাদের তোপ দেগেই গহনা লিখেছেন, ‘দয়া করে হুট করে এক দে়ড় বছর পরে আমার প্রযোজকদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করবেন না।’ সেইসাথে অপর একটি ছবি দিয়ে রাজের প্রসঙ্গ টেনে তিনি লিখেছেন, ‘এই সমস্ত ছবির সঙ্গে রাজের কোনও সম্পর্ক নেই। তাই ট্রোল করার জায়গা নেই। ছবিগুলি পছন্দ না হলে দেখবেন না।’

Related Articles

Back to top button