বিনোদন

স্বাধীনতাকে ‘ভিক্ষে’ বলে কটাক্ষ! কেড়ে নেওয়া হোক কঙ্গনার ‘পদ্মশ্রী’, রাষ্ট্রপতিকে চিঠি মহিলা কমিশনারের

বিতর্কিত মন্তব্যের জেরে বরাবরই শিরোনামে থাকেন বলিউডের ‘কন্ট্রোভার্সি ক্যুইন’ কঙ্গনা রানাওয়াত (Kangana Ranaut)। সবসময়ই বিতর্কের শিরোমণি হয়ে থাকেন তিনি। যেকোনো বিষয়েই মত প্রকাশে তিনি সিদ্ধহস্ত। শিরোনাম থেকে সরতে চাননা কঙ্গনা, আর তাই-ই বিতর্ক হোক বা সমালোচনা কিছুর ভয়ই তার। সামাজিক হোক রাজনৈতিক যে কোনো বিষয়েই বিতর্কিত মন্তব্য করতে সিদ্ধহস্ত কঙ্গনা। যার জেরে একাধিক বার বিতর্কের মুখে পড়েছেন অভিনেত্রী।

সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে স্বাধীনতা সম্পর্কে বিতর্কিত মন্তব্য করে কঙ্গনা বলেছিলেন ‘স্বাধীনতা যদি ভিক্ষে করে পাওয়া যায়, তাহলে তা কী করে স্বাধীনতা হতে পারে ? যে স্বাধীনতা পাওয়া গিয়েছিল, তা ছিল ভিক্ষে। প্রকৃত স্বাধীনতা পাওয়া গিয়েছে ২০১৪-তে, মোদিজ্বি প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর।’ ভারতের স্বাধীনতা নিয়ে এমন বালখিল্য মন্তব্যের জেরে ইতিমধ্যেই ফুঁসে উঠেছে গোটা নেটপাড়া। এমনকি এই বক্তব্যের নিরিখে কঙ্গনার পদ্মশ্রী কেড়ে নেওয়ারও দাবি ওঠে।

এবারের বিষয়টা বেশ গম্ভীর হয়ে উঠেছে বলাই বাহুল্য। শুধু নেটিজেনরা নয় এবার কঙ্গনার পদ্মশ্রী ফিরিয়ে নেওয়ার দাবি জানিয়ে সরব দিল্লীর মহিলা কমিশন। কঙ্গনার এই মন্তব্যের প্রতিবাদে রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ (Ramnath Kovind)-কে দিল্লির মহিলা কমিশনের চেয়ারপার্সন স্বাতী মালিওয়াল এই দাবি জানান৷

পাশাপাশি, কঙ্গনার বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ নেওয়ার হুমকিও দিয়েছেন তিনি। এদিকে ভাঙার পাত্রী নন কঙ্গনাও। অনেক আগেই এই বিতর্কিত মন্তব্যের জেরে ট্যুইটারটি বন্ধ হয়েছে তার, নিজের ইন্সটাগ্রাম মাধ্যমে কঙ্গনা জানান তিনি পদ্মশ্রী ফিরিয়ে দিতে প্রস্তুত। তবে তার কিছু শর্ত রয়েছে, তিনি জানতে চেয়েছেন ১৯৪৭ এ কোনোও যুদ্ধ হয়েছিল কিনা। জানতে পারলে তিনি পদ্মশ্রী ফিরিয়ে দেবেন।

অন্যদিকে স্বাতীর দাবি, এটা কঙ্গনার প্রথম বার নয়। এর আগেও বহুবার এমন বিতর্কিত মন্তব্য করেছেন তিনি। কঙ্গনার এই ‘ভিক্ষার স্বাধীনতা’ ভুল করে করাও নয়। এই ধরনের মন্তব্যের মাধ্যমে কঙ্গনা মহাত্মা গান্ধী (Mahatma Gandhi), শহীদ ভগৎ সিং (Shaheed Bhagat Singh)-এর মতো বিপ্লবীদের অবমাননা করেছেন বলে দাবি করেছেন স্বাতী।

 

Related Articles

Back to top button