বিনোদনভিডিওসিরিয়াল

গুনগুন আর বাচ্চা নেই! পটকার বিপদে চিন্তায় পরিবার, গয়না বেচে টাকা এনে দিল আদর্শ বৌমার পরিচয়

সিরিয়াল প্রেমীদের অত্যন্ত পছন্দের একটি সিরিয়াল হল খড়কুটো (Khorkuto)। শুরু থেকেই এই সিরিয়াল দর্শকমহলে বিপুল জনপ্রিয়। কিন্তু বিগত বেশ কয়েক সপ্তাহ ধরেই টিআরপি একেবারে তলানিতে ঠেকেছে। যার জেরে বিগত কয়েক সপ্তাহ ধরে সেরা দশের টিআরপি রেটিংয়ের ধারে কাছেও নেই এই সিরিয়াল। এসবের মধ্যেই আগামী ১০ জানুয়ারি থেকে প্রাইম থেকে সরিয়ে এই সিরিয়াল টিকে নিয়ে আসা হচ্ছে দুপুরের স্লটে।

তবে দর্শক টানতে সিরিয়ালে নিয়ে আসা হচ্ছে নতুন ট্যুইস্ট। ইতিমধ্যেই সিরিয়ালে দেখা গেছে পেটের ব্যাথায় একেবারে কাবু পটকা। তাকে পরীক্ষা করে গুনগুনের ডাক্তার ড্যাডি অভিষেক জানান পটকার (Potka)পেটে একটা টিউমার আছে সেটা খুব দ্রুত সার্জারি করতে হবে। আর সার্জারি করার পরেই বোঝা যাবে সেটা কতটা ক্ষতিকারক।

এসব শুনে মন খারাপ হয়ে যায় গুনগুনের (Gungun)। অল্প কদিনেই পটকা কে খুব ভালোবেসে ফেলেছে গুনগুন। তাই পটকার চিন্তায় খাওয়া দাওয়া পর্যন্ত বন্ধ করে দিয়েছে সে।এদিকে পটকার চিকিৎসার জন্য রয়েছে বিরাট খরচ। সেই টাকা কীভাবে কোথা থেকে জোগাড় হবে সেই চিন্তায় ঘুম উড়েছে মুখার্জী বাড়ির সকলেই।এই নিয়ে বাড়ির সবাই ব্যস্ত নানান আলাপ আলোচনায়।

অন্যদিকে সৌজন্য জানিয়ে দিয়েছে এই বিষয়ে তার শ্বশুরমশাই অর্থাৎ গুনগুনের ড্যাডির কোনো সাহায্য নেবে না। তাই সবার কথা চিন্তা করে সে নিজের গাদা গাদা সোনার গয়না বিক্রি করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়। আর তাই কাওকে না জানিয়েই সমস্ত গয়না একেবারে জলের দামে বিক্রি করে, ব্যাগ ভর্তি টাকা নিয়ে বাড়ি আসে।


আর গুনগুনের কাছে অত টাকা দেখে কিছু না জেনে আগে থেকেই সবাই গুনগুনকে দোষারোপ করতে শুরু করে দেয়। এমনকি গুনগুনের বর ক্রেজিও। একমাত্র মিষ্টি বৌদি তার পাশে দাঁড়ায় সবাইকে বলে আগে গুনগুনকে কিছু বলার সুযোগ তো দেওয়া হোক। তখন গুনগুন জানায় এতটুকু আত্মসম্মান বোধ তার আছে যে সে তার ড্যাডির কাছ থেকে টাকা নেবে না।

Related Articles

Back to top button