গসিপবিনোদন

বলিউডের এই বিখ্যাত কোরিওগ্রাফার একসময় পিয়ন ছিলেন! আজ কোটি কোটি ফ্যান তার

“ইচ্ছা থাকলে উপায় হয়” – এই প্রবাদকে সত্যি করে একেবারে শুন্য থেকে শুরু করে সফল হয়েছেন বলিউডের বহু তারকা। তাঁদের তালিকায় নবতম নাম হলেন ধর্মেশ ইয়েলানদে (Dharmesh Yelande)। বলিপাড়ার লোকজনের কাছে উনি ধর্মেশ স্যার বলেই অধিক পরিচিত। গতকাল তাঁর জন্মদিনে সোশ্যাল মিডিয়া জুড়ে তাঁকে শ্রদ্ধার্ঘ জানিয়েছেন তাঁর অসংখ্য ফ্যান ও শিক্ষার্থীরা। তবে আজকের ধর্মেশকে দেখে চোখ ধাঁধালেও ধর্মেশ স্যার নিজে এটা মনে রাখেন যে তাঁর জীবন শুরু হয় পিওন হিসেবে। জীবনে সফলতার চূড়ায় পৌঁছালেও যে শিকড়কে সবসময় মনে রাখা উচিত, সেটা বারংবার বলেন ধর্মেশ।

সোশ্যাল মিডিয়ায় এখনও ধর্মেশের ভাইরাল ভিডিওটিতে লাইক বেড়ে চলেছে। ‘ডান্স ইন্ডিয়া ডান্স’-এ রেমো ডিসুজার সামনে প্রথম অডিশনে নামেন ধর্মেশ। ভাইরাল ভিডিওটি ইউটিউবে প্রায় ৪.৯ কোটি মানুষ ইতিমধ্যেই দেখে ফেলেছেন। বর্তমানে প্রায় ১৮বছর ইন্ডাস্ট্রিতে কাটিয়ে ফেলেছেন ধর্মেশ এবং কোরিওগ্রাফার হিসেবে তাঁকে বেশ উঁচুদরের হিসেবেই গণ্য করা হয়।

একটি সাক্ষাৎকারে ধর্মেশ জানিয়েছেন যে, বলিউডে নিজের জীবন শুরুর পরেও বারাপাও বিক্রির মাধ্যমে পরিবারকে সাহায্য করতেন তিনি। তাছাড়া পিওন হিয়াবেও অর্থ উপার্জন করতেন তিনি। জীবনে একেবারে নিঃস্ব অবস্থা থেকে শুরু করে যে উচ্চতায় নিজেকে নিয়ে গেছেন ধর্মেশ, তাতে তিনি বহু মানুষের কাছেই আজ অনুপ্রেরণা।

বর্তমানে ‘ডান্স প্লাস’-এর বিচারকরূপে বহাল রয়েছেন ধর্মেশ ইয়েলানদে। এছাড়াও ‘এবিসিডি’ ও ‘এবিসিডি ২’-তেও অভিনয় করেছেন স্যার। অক্ষয় কুমারের ‘তিস মার খান’ সিনেমাতেও কোরিওগ্রাফার হিসেবে কাজ করেছেন ধর্মেশ।

Related Articles

Back to top button