বিনোদনভিডিওসিরিয়াল

ফুলশয্যা মিটেছে আগেই! এবার মশারি টানাতে গিয়ে আরও কাছাকাছি এল উর্মি-সাত্যকি

জি বাংলার বাংলার জনপ্রিয় সিরিয়াল গুলোর মধ্যে অন্যতম ‘এই পথ যদি না শেষ হয়’(Ei Poth Jodi Na Sesh Hoi)। মাত্র অল্প কয়েক দিনের মধ্যেই এই ধারাবাহিক দর্শকমনে বেশ পাকাপাকিভাবে জায়গা করে নিয়েছে এই সিরিয়াল। তাই টিআরপির দৌড়েও ছোট্টো ছোট্ট পায়ে এগোতে শুরু করেছে ঊর্মি আর সাত্যকি বাবুর লাভ স্টোরি। পরিচালক স্বর্ণেন্দু সমাদ্দারের এই সিরিয়ালে ঊর্মির চরিত্রে অভিনয় করছেন অন্বেষা হাজরা (Anwesha Hazra) এবং সাত্যকির চরিত্রে অভিনয় করছেন ঋত্বিক মুখার্জী (Writwik Mukherjee)।

প্লট অনুযায়ী এই ধারাবাহিকের নায়িকা উর্মি উচ্চবিত্ত পরিবারের মেয়ে। নাচ, গান, আবৃত্তি, খেলাধুলা সবকিছুই সে পারে তবে কোনোটাতেই সে পারদর্শী নয়। আর পরে তার ট্যাক্সি চালানোর সখ হয়। সেই সূত্রেই তার দেখা হয় গল্পের নায়ক অর্থাৎ মধ্যবিত্ত পরিবারের ছাপোষা ছেলে সাত্যকির সাথে। ধীরে ধীরে নানান ঘটনাপ্রবাহের মধ্যে দিয়ে সম্প্রতি একেবারে নাটকীয়ভাবে বিয়ে হয়েছে ঊর্মি-সাত্যকির।

Ei Path Jodi Na Sesh Hoi Serial Urmi Satyaki

আর বিয়ের পর থেকে কখনও ঝগড়া কখনও ভাবের মধ্যে দিয়ে জমে উঠেছে ঊর্মি সাত্যকির সম্পর্কের রসায়ন। আর দর্শকদেরও দারুন মনে ধরেছে ঊর্মি আর সাত্যকি বাবুর এই সম্পর্কের রয়াসন। সম্প্রতি প্রকাশ্যে এসেছে সিরিয়ালের একটি প্রোমো। যেখানে দেখা যাচ্ছে মশারি টানানো নিয়ে কথা কাটা কাটিতে জড়িয়েছে সদ্য বিবাহিত এই নবদম্পতি।

Urmi Satyaki Amader Ei Path Jodi Na Sesh Hoi উর্মি সাত্যকি আমাদের এই পথ যদি না শেষ হয়

বিয়ের আগে এতদিন মশারি ছাড়াই ঘুমিয়ে অভ্যস্ত ঊর্মি। মশারি টানালে মশারির মধ্যে তার সাফোকের হয়। একথা সে কিছুতেই বোঝাতে পারছেন না সাত্যকি বাবুকে। অন্যদিকে সাত্যকির মশারি টানিয়ে ঘুমিয়ে অভ্যাস। মশারি ছাড়া ঘুম আসে না তার। তাই জোর করে মশারি টানিয়ে ঊর্মিকে খাটে উঠতে বলে সাত্যকি। ইচ্ছা না হলেও শেষমেশ বাধ্য হয়েই খাটে উঠে বসে ঊর্মি।

কিন্তু মশারির মধ্যে ঢুকে তার ভীষণ সাফোকেশন শুরু হলে সে পাগলের মতো মশারি খোলার চেষ্টা করে। আর বেচারি সাত্যকি বাবু স্ত্রী কে মশারি খোলার সায়েন্স বোঝাতে ব্যস্ত হয়ে পড়ে। কিন্তু কে শোনে কার কথা। এরপর দড়ি ধরে টানাটানি করতে গিয়ে মশারি শুদ্ধ দুজনে খাটে পড়ে যায়। আর এভাবেই মশারি জড়িয়ে একে অপরের কাছাকাছি আসে তারা।

Related Articles

Back to top button