রেসিপি

দোকান থেকে কিনতে হবেনা বাড়িতেই বানান রুটির সাথে খাওয়ার দুর্দান্ত স্বাদের ডিম তরকা! রইল রেসিপি

দুপুরে বাঙালির ভাত হলে চলে না সে কথা বলাই বাহুল্য। দুপুর বেলা মাছ মাংস বা ডিম দিয়ে চব্য চোষ্য ভোজন সেরে রাতের বেলা রুটিটাই পছন্দ করেন বেশির ভাগ মানুষ। তবে রুটি করলে তার সাথে তরকারি কী হবে তা ভেবেই দিন কাবার হয়ে যাওয়ার জোগাড় হয়। তবে Bong Trend এর রেসিপি বিভাগ যখন রয়েছে তখন আর চিন্তা কোথায়?

তাই আজ আপনাদের জন্য রইল রুটির সাথে বানানোর দুর্দান্ত স্বাদের তরকা। তরকা রুটি পছন্দ করেন না এমন মানুষ নেই৷ এটা আসলে একটি পাঞ্জাবি ঘরানার খাবার। কিন্তু বাঙালিরা অচিরেই এই খাবারকে এক্কেবারে আপন করে নিয়েছে। যেকোনোও রুটির দোকানেই তরকা পাওয়া যায়। তবে আজ আপনাদের শেখাব বাড়িতে কীভাবে বানাবেন ডিম তরকা।

ডিম তরকা বানানোর উপকরণ –

তরকা মিক্সড ডাল – ২ কাপ
ডিম – ২ টি
২টো বড় পেঁয়াজ কুচি
রসুন কুচি
আদা কুচি
টমেটো কুচি
কাঁচা লঙ্কা কুচি
কসুরি মেথি- ১ চা চামচ
জিরে গুঁড়ো – ১ চা চামচ
ধনে গুঁড়ো – ১ চা চামচ
তরকা মসলা – ১ চা চামচ
হলুদ – ১ চা চামচ
নুন – স্বাদমতো
চিনি – স্বাদমতো
তেল
ধনেপাতা কুচি

ডিম তরকা বানানোর পদ্ধতি-

প্রথমেই মিক্সড তরকার ডাল ২ ৩ ঘন্টা জলে ভিজিয়ে রাখতে হবে।

এরপর ভিজিয়ে রাখা ডাল প্রেসার কুকারে সামান্য হলুদ আর নুন দিয়ে সেদ্ধ করে নিতে হবে, এবং খেয়াল রাখতে হবে ডাল যেন তাতে গলে না যায়।

এবার কড়াইতে তেল গরম করে ডিম দুটো সামান্য নুন দিয়ে ঝুড়ো ঝুড়ো করে ভেজে তুলে রাখতে হবে।

এবার তেল গরম হলে তাতে একে একে কসুরি মেথিটা দিয়ে আদা কুচি দিয়ে একটু ভেজে রসুন কুচি দিয়ে ১০ সেকেন্ড পরেই পেঁয়াজ কুচি, লঙ্কা কুচি দিন।

এরপর মশলা কষে এলে তাতে গুড়ো হলুদ, জিরের গুড়ো, ১ চা চামচ তরকা মশলা, টমেটো কুচি দিয়ে ভালো করে কষিয়ে অল্প জল দিয়ে ঢাকা দিয়ে রাখতে হবে।

এবার টমাটো সেদ্ধ হয়ে গেলে, মশলা থেকে তেল বেরিয়ে এলে ডিমের কুচি দিয়ে তাতে সেদ্ধ করে রাখা তরকার ডাল দিয়ে দিতে হবে।

স্বাদ মতো নুন, চিনি, আর ঝালটা দেখে নিতে হবে।এবার আবার সামান্য জল দিয়ে তরকা একটু মাখো মাখো হয়ে এলে, উপর দিয়ে ধনে পাতা ছড়িয়ে রুটির সাথে গরম গরম পরিবেশন করুন ডিম তরকা।

Related Articles

Back to top button