খবরবিনোদনসিনেমা

১৮ বছরের দাম্পত্য শেষ, রজনীকান্তের মেয়েকে বিবাহ বিচ্ছেদ দিলেন দক্ষিণী অভিনেতা ধনুষ

সবে দিন পনেরো পেরিয়েছিল নতুন বছর ২০২২ এর, এরই মধ্যেই বিনোদন জগতে এল বিবাহ বিচ্ছেদের (divorce) খবর। সম্প্রতি দীর্ঘ বিবাহিত জীবনে বিচ্ছেদের ঘোষণা করলেন দক্ষিণী অভিনেতা ধনুষ (dhanush)। স্ত্রী ঐশ্বর্যকে (aishwarya) বিচ্ছেদ দেবার কথা নিজেই সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করেছেন অভিনেতা। দক্ষিণী সুপারস্টার ‘থালাইভা’ রজনীকান্তের কন্যা ঐশ্বর্য।

বিচ্ছেদের ঘোষণা করে একটি টুইট করেছেন ধনুষ। যেখানে তিনি লিখেছেন, ১৮ বছর ধরে একে অপরের সাথে পথচলা, বন্ধু, স্বামী স্ত্রী, অবিভাবক তথা শুভাকাঙ্খী হয়ে। চলার পথে অনেক উন্নতি হয়েছি, অনেক বোঝাপড়া ও সমঝোতা করাও শিখিয়েছে। কিন্তু বর্তমানে আমরা এমন একটা সময়ে দাঁড়িয়ে রয়েছি যেখানে আমরা একেঅপরের পথ আলাদা করার সিধ্যাত্ন নিয়েছি। ঐশ্বর্য ও আমি স্বামী-স্ত্রীর বন্ধন থেকে আলাদা হয়ে নিজেদেরকে আরও ভালো করে চিনতে চাই’।

এরপর ধনুষ আরও লিখেছেন, ‘দয়া করে আমাদের এই সিদ্ধান্তকে সন্মান করবেন ও গোপনীয়তা বজায় রাখার সুযোগ দেবেন’। আর একেবারে শেষে রয়েছে ওঁম নমঃশিবায়। সোশ্যাল মিডিয়াতে এই বার্তা শেয়ার হবার পর মুহূর্তের মধ্যেই ছড়িয়ে পড়েছে সর্বত্র। কারণ দীর্ঘ ১৮ বছর ধরে বিবাহিত ছিলেন ঐশ্বর্য-ধনুষ। দুজনের বিবাহ বিচ্ছেদের সিদ্ধান্তে অনেকেই অবাকও হয়েছেন।

প্রসঙ্গত, ২০০৪ সালে রজনীকান্ত কন্যা ঐশ্বর্যকে বিয়ে করেন ধনুষ। বিখ্যাত দক্ষিণী প্রযোজক কস্তুরী রাজার ছেলে ধনুষ। বিয়ের পর এক দশকের বেশি দাম্পত্য উপভোগ করেছিলেন দুজন। রয়েছে যাত্রা রাজা ও লিঙ্গ রাজা নামের রুই পুত্র সন্তান। ধনুষের বিচ্ছেদের খবর নেটিজেনদের কাছে একেবারেই আকস্মিক। হটাৎ কেন এভাবে বিচ্ছেদের সিদ্ধান্ত নিলেন দুজন তাঁর কারণ এখনও পর্যন্ত অজানাই।

 

দক্ষিণী অভিনেতা হিসাবে ধনুষ বেশ জনপ্রিয়, তবে দক্ষিণী ছবির পাশাপাশি বলিউডেও দেখা গিয়েছে তাঁকে।  বলিউডে প্রথম ছবি ‘রাঞ্ঝনা’, ছবিতে সোনাম কাপুরের সাথে দেখা গিয়েছিল অভিনেতাকে। অন্যদিকে কিছুদিন আগেই অক্ষয় কুমার, সারা আলী খানের সাথে ধনুষ অভিনীত ‘অতরঙ্গি রে’ ছবি মুক্তি পেয়েছে।

Related Articles

Back to top button