গসিপগানবিনোদন

ভারতের বাইরেও উজ্জ্বল করেছে দেশের নাম, রইল সকলের প্রিয় বনগাঁর মেয়ে অরুণিতার আসল পরিচয়

সম্প্রতি শেষ হয়েছে ইন্ডিয়ান আইডলের সিজেন ১২ (Indian Idol 12)। স্বাধীনতা দিবসের দিন ঐতিহাসিক ১২ ঘন্টার লাইভ গ্রান্ড ফাইনাল অনুষ্ঠিত হয়েছে। এবারের ইন্ডিয়ান আইডলের বিজেতা হয়েছেন উত্তরাখণ্ডের ছেলে পবনদীপ রাজন (Pawandeep Rajan)। আর দ্বিতীয় হয়েছে পশ্চিমবঙ্গের বনগাঁর মেয়ে অরুণিতা কাঞ্জিলাল (Arunita Kanjilal)। ইন্ডিয়ান আইডলের মঞ্চে দ্বিতীয় হলেও বাংলা সহ লক্ষ লক্ষ মানুষে মনে কিন্তু গেঁথে গিয়েছে অরুণিতা।

ইন্ডিয়ান আইডল অরুণিতার গান যেমন মুগ্ধ করেছে শ্রোতাদের তেমনি মুগ্ধ হয়েছেন বিচারক থেকে অতিথিরাও। ইতিমধ্যেই অরুণিতা ও পবনদীপ মিলে হিমেশ রেশমিয়ার একটি মিউজিক অ্যালবামে গান গেয়েছে। সাথে করণ জোহরের থেকে একটি বলিউড ছবিতে প্লে ব্যাকের অফার মিলেছে ইতিমধ্যেই। আসুন আজ জেনে নেওয়া যাক অরুণীতার আসল পরিচয়।

Pawandeep Rajan Wins Indian idol 12 arunita comes second

অরুণিতা ২০০৩ সালে বনগাঁয়  জন্মগ্রহণ করেছিল। অরুণিতার মা নিজেও একজন গায়িকা, তিনি চাইতেন মেয়ে গানের জগতে নাম করুক। ছোট থেকেই মায়ের জন্য গানের ট্রেনিং শুরু হয়। অরুণিতার বয়স যখন চার বছর তখন থেকেই নিজের কাকার কাছে ক্লাসিকাল গানের প্রশিক্ষণ শুরু হয়। এরপর পুনের গুরু রবীন্দ্র গাঙ্গুলীর (Rabindra Ganguly) থেকে সংগীতের উচ্চশিক্ষা লাভ শুরু হয়।

জি বাংলার জনপ্রিয় গানের রিয়্যালিটি শো সারেগামাপা লিটল চ্যাম্প ২০১৩তে অংশ গ্রহণ করেছিল অরুণিতা। সেখানে বিজেতা হয়েছিল অরুণিতা। এরপর ২০১৪ সালে জি টিভির সারেগামাপা লিটল চ্যাম্প এ অংশগ্রহণ করেছিল অরুণিতা। সেখানে অরুণিতার ‘অ্যায় মেরে ওয়াতন কে লোগোঁ’ গান ব্যাপকভাবে মন ছুঁয়ে যায়। শো চলাকালীন সেরা পাচ্ছে স্থান করে গায়িকা মোনালি ঠাকুরের থেকে সংগীত শিক্ষার লাভ করেন অরুণিতা।

Indian Idol 12 Arunita

২০১৪তে জি টিভির সারেগামাপা লিটল চ্যাম্পে ‘মঞ্চ কা গুরুর’ ঘোষিত হয়েছিলেন অরুণিতা। খ্যাতি ছড়িয়ে পড়েছিলেন দেশের মাটি ছাড়িয়ে বিদেশেও। এরপর অরুণিতা দেশে তো বটেই বাইরেও অনেক অনুষ্ঠানে গান গেয়েছে। আর সর্বত্রই মানুষকে মুগ্ধ করেছে নিজের গানের মধ্যে দিয়ে। এরপর এবছর ইন্ডিয়ান আইডল ১২ তে প্রতিযোগী হিসাবে ভাগ নিয়েছিল অরুণিতা।

রিয়্যালিটি শো এর মঞ্চে সকলের থেকেই ব্যাপক প্রশংসা পেয়েছেন অরুণিতা। বিচারক থেকে শুরু করে অতিথি সকলের কাছেই ব্যাপক প্রশংসিত হয়েছে তার গান। অনেকেই মনে করেছিল যে অরুণিতার মাথাটাই হয়তো উঠবে ইন্ডিয়ান আইডলের বিজেতার মুকুট। কিন্তু সেই আশা পূরণ হয়নি, দীর্ঘ আট মাসের লড়াই শেষে দ্বিতীয় হয়েছে অরুণিতা। তবে শোয়ে দ্বিতীয় হলেও বাংলার মানুষের মনে কিন্তু প্রথম বনগাঁর মেয়ে অরুণিতা।

Related Articles

Back to top button