গসিপবিনোদনসিনেমা

ও পারবে না, দেখেই বাতিল করেছিলেন আদিত্য! শেষে এই গুণ দেখে অর্জুনকে ‘ইশকজাদে’তে নেন প্রযোজক

রবিবার, ২৬ জুন ৩৭ বছরে পা দিয়েছেন বলিউড অভিনেতা অর্জুন কাপুর (Arjun Kapoor)। দেখতে দেখতে বলিউড ইন্ডাস্ট্রিতে ১০ বছরও কাটিয়ে ফেলেছেন তিনি। পরিণীতি চোপড়ার বিপরীতে ‘ইশকজাদে’ ছবির হাত ধরে ফিল্মি দুনিয়ায় পা রেখেছিলেন বনি কাপুরের পুত্র। কিন্তু ছবির প্রযোজক, যশ রাজ ফিল্মসের কর্ণধার আদিত্য চোপড়া (Aditya Chopra) নাকি অর্জুনকে এই ছবিতে নিতে একেবারেই রাজি ছিলেন না। এক নয়, একাধিকবার অর্জুনকে ‘না’ বলেছিলেন তিনি। সম্প্রতি একথা ফাঁস করেছেন অর্জুন নিজে।

বলিউডের প্রযোজক বনি কাপুরের পুত্র অর্জুন তাঁর বাবার প্রযোজনায় বলিউডে পা রাখতে চাননি। সেই কারণে ‘ইশকজাদে’ (Ishaqzaade) ছবির জন্য অডিশন দিয়েছিলেন তিনি। কিন্তু তাঁকে ছবির নায়কের চরিত্রে নিতে একেবারেই রাজি ছিলেন না যশ রাজ ফিল্মসের কর্ণধার আদিত্য।

Arjun Kapoor in Ishaqzaade

‘ইশকজাদে’ ছবিতে পারমা নামের এক চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন অর্জুন। ছবিতে সে এক উগ্র মেজাজের মুসলিম মেয়ের প্রেমে পড়ে। সেই চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন পরিণীতি। পরিচালনা করেছিলেন হাবিব ফজল। কিন্তু কেন অর্জুনকে ‘ইশকজাদে’ ছবিতে নিতে রাজি ছিলেন না আদিত্য?

সম্প্রতি ডেবিউ ছবি সম্পর্কে কথা বলার সময় অর্জুন বলেন, ‘এটা পরিষ্কার ছিল, আমি আমার বাবার হাত ধরে বলিউডে পা রাখতে চাইনি (কারণ আমার কাছে সবচেয়ে সহজ পথ ছিল বনি কাপুর। আর আমার মনে হয়েছিল, সর্বোচ্চ পর্যায়ে পা রাখার আগে নিজেকে পরীক্ষা করার জন্য সেটা ঠিক উপায় ছিল না। সেই কারণে আমি সেই সহজ পথ ছেড়ে অডিশনে যাই। আদিত্য চোপড়া স্যার আমার ছবি দেখামাত্রই বলেছিলেন, ‘এই ছেলে অভিনেতা হতে পারবে না। ও নায়ক হতে পারবে না’।

অর্জুন কাপুর Arjun Kapoor

বলি ইন্ডাস্ট্রিতে পা রাখার আগে অর্জুনের ওজন অনেক বেশি ছিল। তাই আদিত্য চোপড়া একথা বলার পর বনি-পুত্র টানা ৬ মাস শরীরচর্চা করে ফের অডিশন দেন। এরপর অনিচ্ছা সত্ত্বেও ‘হ্যাঁ’ বলেছিলেন যশ রাজ ফিল্মসের কর্ণধার।

আদিত্য বাতিল করলেও, ‘ইশকজাদে’ ছবিতে অর্জুনের অভিনয়ের প্রশংসা করেছিলেন সমালোচন থেকে শুরু করে অনুরাগী-সকলে। বনি কাপুরের পুত্র এখনও পর্যন্ত ‘গুণ্ডে’, ‘২ স্টেটস’, ‘কি অ্যান্ড কা’-সহ একাধিক জনপ্রিয় ছবিতে কাজ করেছেন। ২০২১ সালে তাঁকে ‘ভুত পুলিশ’ ছবিতে শেষ অভিনয় করতে দেখা গিয়েছিল। অর্জুনের হাতে এখন ‘এক ভিলেন রিটার্নস’, ‘কুত্তে’ এবং ‘দ্য লেডি কিলার’ ছবিগুলি রয়েছে।

Related Articles

Back to top button