ভাইরালভিডিও

এযেন হুবহু রানু মন্ডল! তাও আবার সুদূর বাংলাদেশে, সোশ্যাল মিডিয়াতে তুমুল ভাইরাল হল ভিডিও

রানাঘাটের রানু মণ্ডলকে এখনো ভোলেননি আশা করি। রানাঘাট ট্রেন স্টেশনের এক ভিখারিনী রানু মন্ডলের গানের ভিডিও ভাইরাল হয়েছিল গত বছর, যার জেরে রাতারাতি কপাল ফিরে যায় তাঁর। লতা মঙ্গেশকরের গাওয়া একটি গান রানু মন্ডলের গলায় একেবারে মন ভরিয়ে  তুলেছিল সকলের। এরপরই সেই ভিডিও ভাইরাল হয় আর রাতারাতি সেলেব্রিটিতে পরিণত হয়ে যান রানু মন্ডল।

এখানেই শেষ নয়, বলিউড অবধি পৌঁছে যান রানু মন্ডল এই গানের জেরেই। হিমেশ রেশমিয়ার (Himesh Reshammiya)সাথে বানান গানের ভিডিও “তেরি মেরি “।সেই গানও ভাইরাল হয়ে পরে রাতারাতি। এইরকমই আরো এক রানু মন্ডলের খোঁজ মিলল। যিনি কিনা নিজের মধুর গলায় মন করেছেন শ্রোতাদের।

ভাইরাল হওয়া ভিডিওটি মমতাজ বেগম নামের এক মহিলার। পরনের কাপড়ে রানু মন্ডলের সাথে বেশ মিলও রয়েছে তার। মহিলাকে ঢাকা শহরের কোনো এক রাস্তায় গান করতে দেখা গেছে ভিডিওতে। তার গান গুনে ভিড় জমিয়েছেন লোকে, সেই দর্শকের মধ্যেই কোনো একজন ভিডিও করে পোস্ট করেছেন। পোস্ট করা এই ভিডিওটি ভাইরাল নেটদুনিয়াতে।

রানু মন্ডলের বক্তব্য ছিল তিনি শখে গান করেন, কিন্তু মমতাজ বেগমের ক্ষেত্রে কিন্তু তা নয়। লকডাউনে উপার্জনের সমস্ত পথ বন্ধ হয়ে গেছে, তাই অভাবের দায়ে পেট চালাতেই তিনি এই পেশা বেছে নিয়েছেন।জানা গেছে তিনি কোনো পেশাগত সংগীতের তালিম নেননি।শুধুমাত্র কানে শুনে ও মনে রেখেই তিনি গান গেয়ে চলেছেন।

মমতাজের এইগানের বিয়েও ভাইরাল হবার সাথে লোকে মন্তব্য করেছেন। অনেকেই মমতাজের সাথে রানা ঘাটের রানু মন্ডলের তুলনা করেছেন, সাথে ও বলেছেন সস্তার  জনপ্রিয়তার জন্যই এই সব। অনেকে মমতাজ বেগমকে রানু মন্ডলের বোন বলে সম্মোধন করেছেন। যদিও এতে কোনো ক্ষতি হয়নি মমতাজ বেগমের, আখেরে তার লাভই হয়েছে। এখন ঢাকার মানুষ যেচে মমতাজ বেগমের গান শুনতে যান ও সাধ্যমত সাহায্য করে আসেন।

 

Related Articles

Back to top button