গসিপবিনোদনসিনেমা

কোটিপতি হয়েও সুখ নেই ! বড়লোক বরের ঘর ছেড়ে বাপের বাড়িতে ঠাঁই হয়েছে বচ্চনের মেয়ে শ্বেতার

বলিউড শহেনশা অমিতাভ বচ্চন, তাকে এবং তার পরিবারের সদস্যদের নিয়ে দর্শকদের মধ্যে বরাবরের কৌতূহল। তা সে ছেলে অভিষেক বচ্চন হোন, কিংবা পুত্রবধূ ঐশ্বর্য তালিকায় রয়েছেন সকলে। এমনকি বচ্চনের মেয়ে শ্বেতা নন্দা সিনেমা জগত থেকে দূরে থাকলেও বিগবির মেয়ে হওয়ার কারণে মাঝেমধ্যেই শিরোনামে আসেন তিনিও।

বচ্চনের সাথে তার মেয়ে শ্বেতার সম্পর্কটাই একেবারে বন্ধুর মতো। মাঝেমধ্যেই বিগবি তার মেয়ের সাথে সোশ্যাল মিডিয়ায় ছবি আপলোড করে থাকেন। এছাড়া তিনি প্রতিদিনই মেয়ের সাথে ফোন করে কথা বলেন। এমনকি সারাদিনের চরম ব্যস্ততার মধ্যেও সুযোগ করে ঠিক ফোনে কথা বলে নেন মেয়ের সাথে একথা একবার নিজেই জানিয়েছিলেন বিগ বি।

১৯৯৭ সালে মাত্র ২১ বছর বয়সে শ্বেতা বচ্চনের বিয়ে হয় নিখিল নন্দার সঙ্গে। দেশের বিখ্যাত ব্যাবসায়ী এই নিখিল নন্দা হলেন রাজ কপুরের মেয়ে রিতু নন্দার ছেলে। বচ্চনের মেয়ে জামাইয়ের একটি ছেলে এবং একটি মেয়ে আছে। তাদের নাম নব্যা নভেলি নন্দা এবং ছেলে আগস্তা নন্দা। এই দুই স্টারকিডও মাঝেমধ্যেই শিরোনামে উঠে আসে।

শ্বেতার স্বামী নিখিল নন্দা এস্কর্ট গ্রুপের চিফ অপারেটিং অফিসার। তিনি নিজে কোটিপতি হলেও তার স্ত্রী শ্বেতা ইদানীং বাপের বাড়িতে অর্থাৎ অমিতাভ বচ্চনের বাড়িতে এসে থাকছেন। একথা জানাজানি হতেই নানা মহলে নানা বিষয়ে প্রশ্ন উঠছে। কেউ বলছেন শ্বেতার সাথে তার শ্বশুর বাড়ির লোকজনের সম্পর্ক ভালো না, আবার কেউ বলছে নিখিল নন্দার সাথে শ্বেতার সম্পর্কের অবনতি হয়েছে।

যদিও এখনও পর্যন্ত স্বামী নিখিল নন্দার সাথে শ্বেতার ডিভোর্স হয়নি। কিন্তু তারা তাদের নিজেদের পেশা নিয়ে এতটাই ব্যস্ত থাকেন যে তাদের একে অপরের সাথে নিয়মিত দেখা টুকুও হয়না। উল্লেখ্য শ্বেতা ইতিপূর্বে সাংবাদিক,হোস্ট এবং মডেল হিসাবে কাজ করেছেন।২০১৮ সালে এম এক্স এস নামে নিজের ফ্যাশন কোম্পানি লঞ্চ করেছিলেন। পাশাপাশি ২০১৮ সালে কল্যাণ জুয়েলার্সের ব্রান্ড অ্যাম্বাসেডর ছিলেন। এছাড়া তিনি লেখালিখিও করেন।

Related Articles

Back to top button