গসিপবিনোদনসিনেমা

নেপোটিজমের আঁতুড়ঘর বলিউড! করণ জোহরের অহংকার মাটিতে মিশিয়ে দিয়েছিলেন অজয় দেবগন

গত বছর অর্থাৎ ২০২০ সালের ১৪ ই জুন ছিল গোটা ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির কাছে একটা অভিশপ্ত দিন। ওইদিন বলিউড অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের অকাল মৃত্যু নাড়িয়ে দিয়েছিল গোটা দেশকে। তাঁর মৃত্যু সংবাদে তোলপাড় হয়েছিল গোটা দেশ। সেইসাথে বিটাউনের অন্দরে মাথাচাড়া দিয়ে উঠে ছিল স্বজনপোষণের অভিযোগ। যার যার ফলে গোটা ইন্ডাস্ট্রি মূলত দুটি ভাগে বিভক্ত হয়ে গিয়েছিল।

উল্লেখ্য বিটাউনে নেপোটিজম এর অভিযোগ বহুদিনের পুরনো। তবে সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর পর থেকে নেপোটিজমের অভিযোগের মূল কেন্দ্রবিন্দু হয়ে উঠেছেন বলিউডের খ্যাতনামা পরিচালক করণ জোহর। তাঁর বিরুদ্ধে দীর্ঘ দিনের অভিযোগ ইন্ডাস্ট্রিতে ফিল্মি ব্যাকগ্রাউন্ডের বাইরে থেকে আসা তারকাদের প্রতি বিমাতৃসুলভ আচারণ করেন তিনি।

তবে বলিউডে এমন কয়েকজন অভিনেতা রয়েছেন যাঁরা কখনই করণ জোহরের অহংকারের কাছে মাথা করেননি। বরং তাঁর অহংকারকে পায়ের তলায় পিষে তাঁকে ক্ষমা চাইতে বাধ্য করেছিলেন অভিনেতা। ঘটনার সূত্রপাত ২০১২ সালে। সেবছর অজয় দেবগনের সিনেমা ‘সন অফ সর্দার’ রিলিজ করে। সেই একই সময়েই শাহরুখ অভিনীত ‘জাব তাক হে জান’ সিনেমাটি রিলিজ করেছিলেন করণ। সেসময় সবাই ধরেই নিয়েছিলেন শাহরুখের সিনেমার সামনে টিকতে পারবে না অজয় দেবগন অভিনীত সিনেমা।

কিন্তু ঘটলো ঠিক উল্টোটা শাহরুখ খানের ছবিকে ছাপিয়ে অজয় দেবগনের সিনেমা বক্সঅফিসে আয় করল প্রায় ১২৫ কোটি টাকা। সেসময় অজয় দেবগন এবং করণ জোহরকে বিতর্কের মুখেও পড়তে হয়েছিল। জানা যায় মামলা শেষ পর্যন্ত কোর্ট অবধিও গড়িয়েছিল। এরপর ফের একবার বিতর্ক মাথাচাড়া দেয় ২০১৬ সালে। সেবছর মুক্তি পেয়েছিল অজয় দেবগণ অভিনীত ‘শিবায়’। সিনেমাটি দিওয়ালিতে মুক্তি পাওয়ার ছিল।

কিন্তু সেবারও ওই একই সময়ে করণ জোহর পরিচালিত বিগ বাজেটের ছবি ‘এ দিল হ্যায় মুশকিল’ মুক্তি পায়। এর পর দুই সিনেমার মধ্যে শুরু হওয়া পেশাদারী লড়াই খুব তাড়াতাড়ি ব্যক্তিগত হয়ে যায়। সেসময় অভিনেত্রী কাজলও তাঁর স্বামীর পাশে দাঁড়িয়েছিলেন। তবে এই ঘটনার তিন বছর পর করণ জোহর নিজেই বাধ্য হয়ে নতিস্বীকার করেছিলেন অজয় দেবগনের কাছে। টক শো ‘কফি উইথ করন’-এ সকলের সামনেই করণ অজয় দেবগনকে বলেছিলেন, ‘আমার এরকমটা করা মোটেই উচিত হয়নি, আমি তার জন্য খুবই দুঃখিত।’

Related Articles

Back to top button