গসিপবিনোদন

বিতর্কের মাঝেই এবার পানমশলার বিজ্ঞাপন নিয়ে মুখ খুললেন অজয় দেবগণ, জনতার বিরুদ্ধেই তুললেন সুর

সম্প্রতি পান মশলার বিজ্ঞাপন করে নেটপাড়ায় তুমুল ক্ষোভের মুখে পড়েছেন বলিউডের খিলাড়ী অক্ষয় কুমার (Akshay Kumar), আসলে একসময় নিজেই অক্ষয় গুটখা পান মশলা শরীরের জন্য ক্ষতিকারক বলতেন। অজয় দেবগণ থেকে শাহরুখ খান বলিউডের প্রথমসারির তারকারা পান মশলার বিজ্ঞাপনে করে থাকলেও তিনি কখনও এইসব ভুলেও প্রমোট করেননি। কিন্তু শেষে সেই নিজের দেওয়া কথা নিজেই ভেঙেছিলেন অক্ষয়।

টাকার জন্য সেই গুটখা কোম্পানির হয়েই বিজ্ঞাপনে নেমেছিলেন অক্ষয় কুমার (Akshay Kumar in Vimal Elaichi Advertisement)। সম্প্রতি বিমল এলাইচির বিজ্ঞাপনে দেখা গিয়েছিল অক্ষয় কুমারকে। নিমেষের মধ্যেই ভাইরাল হয়ে যায় বিজ্ঞাপনী ভিডিওটি। ভিডিও দেখা মাত্রই নেটিজেনরা অভিনেতাকে মনে করিয়ে দেন তার পূর্বে দেওয়া কথা। বিমলের বিজ্ঞাপনে অক্ষয় কুমারকে দেখেই শুরু হয় ট্রোলিং, কটাক্ষ। সোশ্যাল মিডিয়ায় অক্ষয় কুমারের মিমে ভরে যায়। নেটিজেনদের ট্রলিং মিমের বাড়বাড়ন্ত দেখে শেষমেশ ক্ষমা চাইতে বাধ্য হয়েছিলেন অক্ষয়।

Akshay Kumar trolled for Vimal Advertisement with Ajay Devgan Shahrukh Bolo Zuba Kesari

নিজের অফিসিয়াল টুইটারে অক্ষয়লিখেছিলেন , ‘আমি দুঃখিত। আমি আমার ফ্যান ও শুভচিন্তকদের কাছে ক্ষমাপ্রার্থী। বিগত কিছুদিনের আপনাদের প্রতিক্রিয়া আমায় প্রভাবিত করেছে। আমি নিজে কোনোদিন তামাক নিয়ে কোনো প্রচার করিনা আর বিমল ইলাইচির বিজ্ঞাপনের জন্য অনেকেই কষ্ট পেয়েছেন সেটাও বুঝতে পেরে দুঃখিত’। এরপর অভিনেতা তাকে বিজ্ঞাপন থেকে সরিয়ে নেওয়ার জন্য অনুরোধও করেন , এবং প্রতিশ্রুতি দেন বিজ্ঞাপন থেকে প্রাপ্ত টাকা তিনি দেন করে দেবেন কোনোও ভালো কাজের উদ্দেশ্যে।

এতদিন পর্যন্ত গোটা বিষয় নিয়ে নীরবই ছিলেন অভিনেতা অজয় দেবগণ। সকলেরই জানা , এর আগে পর্যন্ত বমলের বিজ্ঞাপনে দেখা যেত অজয়কেই। এবার এই প্রসঙ্গে তাকে জিজ্ঞেস করা হলে অজয় সাফ জানান ,বিমলে বিজ্ঞাপন করা ছিল তার ব্যক্তিগত পছন্দ।

এরপর তিনি আরও  বলেন, “মানুষ কিছু করার আগে সেটা সম্পর্কে জেনে বুঝেই করে। তা কতটা ক্ষতিকর হবে, জেনেই মানুষ কোনও কাজ করেন। কিছু জিনিস ক্ষতিকর, কিছু নয়। আমি ওটার নাম করব না। কারণ ওটার প্রমোশনে আসিনি। আমি এলাচের বিজ্ঞাপন করি। আমার মনে হয়, এই সমস্ত জিনিস যদি সত্যিই ক্ষতিকর হয়, তাহলে একদম বন্ধ করে দেওয়া উচিত।”

Related Articles

Back to top button