গসিপবিনোদন

‘আমার সব্যর ঐন্দ্রিলা’, ঐন্দ্রিলার ছবি শেয়ার করেলেন মা, আবেগে ভাসল সোশ্যাল মিডিয়া

দেখতে দেখতে এক সপ্তাহ হয়ে গেল টলিউডের নামী অভিনেত্রী ঐন্দ্রিলা শর্মা (Aindrila Sharma) শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছেন। আস্তে আস্তে প্রত্যেকে নিজের পুরনো জীবনে ফিরে গেলেও অভিনেত্রীর পরিবারের সময়টা এখনও গত রবিবার বেলা ১২:৫৯ মিনিটেই আটকে রয়েছে। ঐন্দ্রিলাকে হারানোর পর এখন তাঁর পুরনো সব স্মৃতি আঁকড়েই বেঁচে রয়েছে তাঁর পরিবারের সদস্যরা।

‘জিয়ন কাঠি’ অভিনেত্রীর মা, বাবা, দিদি প্রত্যেকে এখনও তাঁর পুরনো নানান ছবি, ভিডিওর মাধ্যমেই তাঁকে খুঁজছেন। মা শিখা শর্মা (Shikha Sharma) এবং দিদি ঐশ্বর্য শর্মার ভিডিও দেখেই বেশ বুঝে নেওয়া যাচ্ছে সেকথা। রবিবার যেমন অভিনেত্রীর মা নিজের সোশ্যাল মিডিয়ায় ঐন্দ্রিলা এবং সব্যসাচীর (Sabyasachi Chowdhury) একটি অদেখা ভিডিও শেয়ার করেছেন। যা দেখে চোখে জল এসে গিয়েছে নেটিজেনদের।

Aindrila Sharma mother, Shikha Sharma

অবশ্য শুধুমাত্র শিখাদেবীর শেয়ার করা ভিডিও দেখেই নয়, তাঁর লেখা ক্যাপশন পড়েও আবেগতাড়িত হয়ে পড়েছেন নেটিজেনরা। অনেকের আবার সব্যসাচী-ঐন্দ্রিলার অপূর্ণ প্রেমের কথা ভেবে চোখে জল এসেছে।

২০১৭ সালে বিনোদন ইন্ডাস্ট্রি পা রেখেছিলেন ঐন্দ্রিলা। ‘ঝুমুর’ ধারাবাহিকের মাধ্যমে ডেবিউ হয়েছিল তাঁর। সেই ধারাবাহিকের ঐন্দ্রিলার বিপরীতে অভিনয় করেছিলেন সব্যসাচী। এই ‘ঝুমুর’এর সেট থেকেই সব্যসাচী-ঐন্দ্রিলার সম্পর্কেরও সূত্রপাত। এই ধারাবাহিকেরই একটি দৃশ্য নিয়ে তাঁদের ভিডিওটি বানানো হয়েছে।

Aindrila Sharma Sabyasachi Chowdhury marriage in Jhumur

শিখাদেবীর শেয়ার করা ভিডিওয় দেখা যাচ্ছে, পরম যত্নে, আদুরে ভঙ্গিতে ঐন্দ্রিলার দু’গালে হাত রেখেছেন সব্যসাচী। সংশ্লিষ্ট দৃশ্যের সঙ্গে জুড়ে দেওয়া হয়েছে একটি বাংলা গান। ভিডিওটি তারকাজুটির কোনও এক ভক্ত বানিয়েছিলেন। সেটি চোখে পড়ে যায় অভিনেত্রীর মায়ের। ভিডিওটি শেয়ার করে শিখাদেবী ক্যাপশনে লিখেছেন, ‘আমার সব্যর ঐন্দ্রিলা’।

Aindrila Sharma mother, Shikha Sharma, Shikha Sharma Facebook post

ঐন্দ্রিলার জীবনে যত কঠিন সময়ই আসুক না কেন সব্যসাচী বরাবর তাঁর পাশে থেকেছেন। অভিনেত্রীর মতোই তাঁর পরিবারের সদস্যদেরও আগলে রাখতেন ‘মহাপীঠ তারাপীঠ’ অভিনেতা। ‘জিয়ন কাঠি’ অভিনেত্রীর মৃত্যুর পরেও বিষয়টির অন্যথা হয়নি। নিজে ভেঙে পড়লেও ঐন্দ্রিলার পরিবারের কাছে তা প্রকাশ করেননি। নিজের যন্ত্রণা মনের মধ্যে চেপে রেখে ঐন্দ্রিলার মা-বাবা-সহ সম্পূর্ণ পরিবারকে সামলাচ্ছেন সব্যসাচী।

Related Articles

Back to top button