খবরবিনোদন

এনসিবির জেরায় রিয়া বললেন,”আমি একজন খুব ভালো অভিনেত্রী “

সুশান্ত মৃত্যুর তদন্তের সাথে বলিউডে মাদককাণ্ডে নাম জড়িয়েছে রিয়া চক্রবর্তীর। এই সূত্রে নার্কোটিকস ব্যুরো (NCB) এর জেরার মুখোমুখি রিয়া চক্রবর্তী।দীর্ঘ ৩৬ ঘন্টা ধরে চলা জেরার ৫৫নং প্রশ্নে ভেঙে পড়লেন মূল অভিযুক্ত রিয়া। এনসিবি কর্তারা ৫৫ নং প্রশ্নে রিয়া কে জিজ্ঞাসা করেন “একজন অভিনেত্রী হিসাবে আপনি কতটা ভালো? ” জবাবে রিয়া বলেন “আমি বেশ ভালো অভিনেত্রী।” এভাবেই রিয়াকে দিয়ে স্বীকার করাল এনসিব যে তিনি মাদক চক্রে জড়িত।

যেমনটা জানা যাচ্ছে, রিয়া জেরার প্রথম দিকে বেশ শান্ত ছিলেন। বিশদে উত্তর না দিতে রিয়া বেশ অবিচলিত ছিলেন। তখন এনসিবি কর্তারা বুঝতে পারেন এভাবে জেরা করে কোনো লাভ হবে না। তখন এক এনসিবি করতে রিয়ে কে প্রশ্ন করেন “আপনি ভালো অভিনেত্রী হিসাবে কতটা ভাল?” এই প্রশ্নের উত্তরে রিয়া বলেন “আমি খুব ভালো মানের অভিনেত্রী।” এর পরেই উপস্থিত অফিসারেরা তাকে অভিনয় বন্ধ করতে বলেনা। অফিসারেরা রিয়া কে বলেন “এটা অভিনয়ের সময় না।”

এর পর অফিসারেরা রিয়ে কে বলেন ” যদিও বা ধরে নেওয়া যাক আপনি মাদক নেন না। তাহলেও আপনি একজন মাদক কারবারি (Drug Peddler) যেটা আরো বেশি গুরুতর অপরাধ। “এই ধরণের প্রশ্নই রিয়া কে ভেঙে দেয়। এর পর রিয়া এটাও স্বীকার করেন যে তিনি মাদক না নেয়ার ব্যাপারে শেখানো বক্তব্য বলে যাচ্ছিলেন। শেষমেশ রিয়া এনসিবি অফিসারদের তথ্য দেওয়া শুরু করে, ও এমন কিছু তথ্য দেয় যা অফিসারদের অজানা ছিল।

প্রসঙ্গত, বলিউডের মাদক কাণ্ডে নাম জড়ানোর প্রমান পাবার পর রিয়ার ২২শে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত জেল হয়েছে। বর্তমানে রিয়া বাইকুলা কারাগারে বন্ধি রয়েছে। শুধু রিয়াই না রিয়ার ভাই সৌভিক,সুশান্ত রাজপুতের কর্মী স্যামুয়েল ও দীপেশ সাওয়ান্তরাও এনসিবি হেফাজতে রয়েছে। তাদের জামিনের আবেদন আপাতত ২৯ শে সেপ্টেম্বর অবধি স্থগিত আছে।

Related Articles

Back to top button