বিনোদনসিনেমা

‘তোর বিকল্প হবে না কোনোদিন। ভাল থাকিস রে বন্ধু।’, শিল্পীর প্রয়াণে শব্দহীন হয়ে পড়েছেন প্রসেনজিৎ

টলি পাড়ায় ফের ইন্দ্রপতন। সকাল সকাল বিষণ্ণতার মেঘ যেন ঢেকে দিল টলি পাড়ার আকাশ। কারণ আচমকাই না ফেরার দেশে চলে গেলেন টলিউড খ্যাত অভিনেতা অভিষেক চট্টোপাধ্যায় ( Abhishek Chatterjee )। তাঁর মৃত্যু সংবাদ যেন এক প্রকার নাড়িয়ে দিল বাংলার সিনেমা পাড়াকে। গতকালই একটি রিয়েলিটি শো-এর শুটিং সেটেই আচমকা অসুস্থ হয়ে পড়েন তিনি। এরপর সেখান থেকে কোনও মতে বাড়িতে ফেরেন তিনি। বাড়িতেই স্যালাইনের ব্যবস্থাও করা হয়েছিল। কিন্তু তারপর আর শেষরক্ষা হল না। বৃহস্পতিবার ভোর নাগাদ মৃত্যু হয় তাঁর।

ইতিমধ্যে তাঁর মৃত্যুতে শোকের ছায়া ছড়িয়েছে শিল্পী মহলে। মাত্র ৫৭ বছর বয়সেই মৃত্যু তাঁর। তাঁর মৃত্যুতে ভেঙে পড়েছেন প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়ও। বন্ধুকে ( Abhishek Chatterjee ) হারানোর শোক এখনও মন থেকে মেনে নিতে পারেননি তিনি। সকাল থেকে সংবাদমাধ্যমগুলিকেও প্রতিক্রিয়া চাননি তিনি। এদিন মৃত্যু শোক অন্তর থেকে মেনে নিতে পারেননি তিনি।

মৃত্যুর প্রায় ১৬ ঘণ্টা পর বিধ্বস্ত প্রসেনজিৎ ( Prasenjit Chatterjee ) প্রকাশ্যে নিয়ে এলেন নিজের মনখারাপের কথা। এদিন বিকেল প্রায় পাঁচটা নাগাদ টুইটারে লিখলেন, ‘বিশ্বাস হচ্ছে না যে অভিষেক আর নেই। কী বলব, কী লিখব… ভাষা হারিয়েছি।’ তাঁর সংযোজন, ‘তোর বিকল্প হবে না কোনোদিন। ভাল থাকিস রে বন্ধু।’

Abhishek Chatterjee passes away

বৃহস্পতিবার সকাল বেলায় অভিষেকের ( Abhishek Chatterjee ) প্রয়াণের খবর প্রকাশ্য আসতেই রাজ্যের বহু সংবাদমাধ্যম শিল্পীর পুরানো বন্ধু প্রসেনজিৎ-এর সঙ্গে যোগাযোগ করে। সংবাদমাধ্যমের উদ্দেশে তিনি বলেন, “একের পর এক মৃত্যু আমায় দেখে যেতে হয়, প্রতিক্রিয়া দিয়ে যেতে হয়। কিন্তু অভিষেকের মৃত্যু আমায় অন্তর থেকে ভেঙে দিয়েছে। আর এই প্রথমবার আমাকে জানাতে হচ্ছে, এর প্রতিক্রিয়া আমি দিতে পারব না।” এদিন তিনি আরও বলেন, “ওর বিয়েতে বরকর্তা হয়ে গিয়েছিলাম আমি। সেই দিনটার কথা আজ মনে পড়ছে। ওর সঙ্গে যা কিছু ভাল স্মৃতি সেটাই রেখে দিতে চাই। এর বেশি সত্যি ওর জন্য আমি আর কোনও শব্দ ব্যবহার করতে পারছি না।’’

Related Articles

Back to top button