বিনোদন

পুরুষদের প্রতি বিরক্ত! ইংল্যান্ডের বিখ্যাত অভিনেত্রী হাবুডুবু খাচ্ছেন ভীনগ্রহের এলিয়েনের প্রেমে

ভালোবাসা একটি অদ্ভুত জিনিস। স্বয়ং ব্রহ্মাও নিজে জানেন না কে কার প্রেমে পড়বে। প্রেম, বয়স, লিঙ্গ, বর্ণ, ধর্ম এসব কিছুই মানেনা, কারণ ‘পিরিত হল কাঁঠালের আঠা, যা একবার লাগলে ছাড়ানো মুশকিল। ‘ প্রতিদিন কতজন লোক কত মানুষের প্রেমে পড়ে, কিন্তু আপনি কি কখনও শুনেছেন যে একজন মানুষ এলিয়েনের প্রেমে পড়েছেন? এমনটাই দাবি করেছেন লন্ডনের বিখ্যাত অভিনেত্রী ইউটিউবার অ্যাবি বেলা।

তাঁর মতে, তিনি পৃথিবীর পুরুষদের ভালোবাসায় বিচলিত, তাই তিনি ভিন গ্রহের প্রাণীদের দ্বারা আকর্ষিত হন । তার প্রেমের গল্পে রূপকথার মতো, একজন এলিয়েন হঠাৎ তার জীবনে প্রবেশ করল, যার প্রেমে অ্যাবি হাবুডুবু খাচ্ছেন। তিনি বলেছিলেন যে একদিন বিকেলে তিনি জানালার বাইরে প্রকৃতির দিকে তাকিয়ে ছিলেন এবং অবিলম্বে একটি উড়ন্ত যান তার দিকে ছুটে আসে। চোখের নিমেষে সেই যানে বেলা ওঠেন এবং তার প্রেমিক এলিয়েনের সাথে দেখা হয়ে যায়।

মহামারীর সময় যখন পৃথিবী সংকটে ছিল, অভিনেত্রী তার ইউটিউব চ্যানেলে রসিকতা করে বলেছিলেন যে তিনি চেয়েছিলেন যে কোনও বহি বিশ্বের মানুষ এসে তাকে অপহরণ করুক। কয়েক মাস আগে এক রাতে, সে একটি স্বপ্ন দেখেছিলেন তিনি যেখানে একটি কণ্ঠ তাকে বলেছিল: “সঠিক জায়গায় অপেক্ষা করুন।”

মাঝে মাঝে সে স্বপ্নে এমন সাদা আলো দেখতেন। বেলার বর্ণনা অনুসারে, রাত ঠিক 12 টায় সে আকাশে একটি উড়ন্ত যান দেখতে পান। বেলা কিছু বুঝে ওঠার আগে, সে তাকে তার শোবার ঘরে নয় দাঁড়িয়ে থাকতে দেখে ওই উড়ন্ত যানের নীচে। তাদের মধ্যে ৫ জন এলিয়েন, লম্বা এবং পাতলা ছিল। বেলা সঠিক চেহারা দেখেনি, কিন্তু সে বুঝতে পেরেছিল যে তারা সবুজ।

বেলার এই বক্তব্যে অনেকেই সন্দেহ প্রকাশ করেছেন। অনেকেই মনে করছেন এটি বেলার কোনো মনস্তাত্ত্বিক রোগ। তবে বেলা তার প্রেমিক এলিয়ানের ছবিও এঁকে দেখিয়েছেন। বেলা আরও জানান, তাকে নাকি প্রেমিক এলিয়েন বলেছেন মানুষের সঙ্গে প্রেম করা তাদের গ্রহে নিষিদ্ধ। তবে বেলার জন্য সে সবকিছু করতেই প্রস্তুত আছে। যদি বেলার সম্মতি থাকে তাহলে তারা তাকে তাদের গ্রহে নিয়ে যাবে।

Related Articles

Back to top button