খবরবিনোদন

মুখে ঠোঁটে রক্ত, কলকাতা এসেই প্রয়াত কেকে! গায়কের অস্বাভাবিক মৃত্যুর মামলা রজু আদালতে

পূর্বাভাস ছাড়া কোনও ঝড় এলে যেমন সব ছারখার হয়ে যায় , ঠিক তেমনই গত রাতে কোনওরকম আভাস ছাড়াই সার ঘুমের দেশে চলে গিয়েছেন সমগ্র বিনোদন জগতের রোম্যান্টিক সঙ্গীত শিল্পীদের অন্যতম প্রবাদপ্রতিম গায়ক কে কে।  আক্ষেপ একটাই সারা বিশ্ব মাতিয়ে বাংলার মাটিতেই শেষ নিঃস্বাস ত্যাগ করেছেন তিনি। গতকাল রাত থেকে আজ অবধি তার অকাল প্রয়ানে স্তব্ধ গোটা দেশ। এই মৃত্যুকে স্বাভাবিক বলে মানতে নারাজ অনেকেই।

গতকাল অর্থাৎ মঙ্গলবার কলকাতার নজরুল মঞ্চেই সুস্থ স্বাভাবিক ভাবে শো করতে এসেছিলেন কে কে ওরফে কৃষ্ণকুমার কুন্নাত। মঞ্চে গান গাইতে গিয়ে হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়েন তিনি। তারপর হোটেলে গিয়েও পরিস্থিতির অবনতি হয়, দ্রুত নিয়ে যাওয়া হয় হাসপাতালে। সেখানেই গায়ককে (Krishnakumar Kunnath) মৃত বলে ঘোষণা করেন হাসপাতালের ডাক্তারেরা। তার মৃত্যুর পর থেকেই প্রশ্ন উঠছে সেই শো এর ম্যানেজমেন্ট কমিটির উপর।

যে মানুষটা কিছুক্ষণ আগে সুস্থ অবস্থায় গান গেয়ে পারফর্ম করছিলেন, হঠাৎ করেই কিভাবে এমন পরিণতি হল তার? শুধুই কি শারীরিক অসুস্থতা নাকি রয়েছে মৃত্যুর নেপথ্যে অন্য কোনো কারণ? গায়ক এর মৃত্যুর পর এই প্রশ্ন সকলেরই। এই মৃত্যুকে স্বাভাবিক চোখে দেখতে নারাজ তার অনুরাগীরা।

ইতিমধ্যেই কলকতার নিউ টাউন থানায় কেকের অস্বাভাবিক মৃত্যু নিয়ে মামলা রাজু হয়েছে।  পুলিশ সূত্রে খবর মৃত্যু কালে তার ঠোঁট এবং মুখের কাছে একটি ক্ষত ছিল যেখান থেকে রক্ত পড়ছিল। তিনি নাকি হোটেলে পরে গিয়েছিলেন আর সেখান থেকেই তার আঘাত লাগে। গুরুসদয় মহাবিদ্যালয়ের কলেজ ফেস্ট ‘উৎকর্ষ 2022’-এ গান গাইতে কলকাতা এসেছিলেন শিল্পী, শোনা যাচ্ছে অস্বাবিক গিজগিজে ভিড় আর উন্মাদনায় প্রথম থেকেই অস্বস্তিতে ছিলেন কে কে।

সম্প্রতি ফেসবুকে একটি ভিডিও বেশ ভাইরাল হয়েছে । ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে ধীরে ধীরে গিয়েছে নজরুল মঞ্চ ঠিক যেখানে গান গাইছিলেন কেকে। আর সেখানে হঠাৎই অগ্নিনির্বাপক যন্ত্রটিকে চালু করে দেওয়া হয়। যার ফলে সেদিন থেকে গ্যাস নির্গত হয়, এই গাছটি মূলত কার্বন-ডাই-অক্সাইড। সেই গ্যাস ছড়িয়ে কি অসুস্থ হয়ে পড়েন গায়ক? উঠছে প্রশ্ন।

Related Articles

Back to top button